৭২তম সাধারণতন্ত্র দিসবের প্রাককালে রাষ্ট্রপতি রামনাথ কোবিন্দ মহামারি, দেশের আর্থিক অবস্থা থেকে শুরু করে কৃষক সমস্যা ও প্রকৃত নিয়ন্ত্রণ রেখায় চলমান বিবাদ নিয়ে দেশবাসীর সঙ্গে বিশ্ববাসীকেও বার্তা দিয়েছেন। রাষ্ট্রপতি রামনাথ কোবিন্দ দেশের অন্নদাতাদের পাশাপাশি দেশের চিকিৎসক, বিজ্ঞানী ও সেনা জওয়ানদের প্রতি শ্রদ্ধা জানান। 

কৃষকদের উদ্দেশ্যে বার্তা 
রাষ্ট্রপতি রামনাথ কোবিন্দ বলেন প্রত্যেক ভারতবাসী দেশের কৃষকদের কাছে কৃতজ্ঞ। দেশের অন্নদাতাদের একান্ত প্রচেষ্টা ভারত খাদ্য উৎপাদনে স্বনির্ভর হয়েছে। মহামারিকালেও খাবারের জন্য কোনও সমস্যার সম্মুখীন হতে হয়নি দেশের বাসিন্দাদের। তিনি বলেন এই দেশ কৃষকদের স্বার্থ রক্ষায় সদা সর্বদা সচেষ্ট বলেও মন্তব্য করেন তিনি। 

সেনাদের উদ্দেশ্যে বার্তা 
রাষ্ট্রপতি রামনাথ কোবিন্দ বলেন দেশের অখণ্ডতা রক্ষায় সর্বাদা প্রয়াস চালিয়ে যাচ্ছে দেশের সেনা জওয়ানরা। দেশের সেনা বাহিনীর সদস্যরা সিয়াচেনে মোতায়েন রয়েছে।  যেখন হিমাঙ্কের ৪০-৫০ ডিগ্রিতাপমাত্রার নিচে থাকে। তেমনই আবার দেশের বাসিন্দাদের নিরাপত্তার কথা মাথায় রেখে জয়সালমীরে প্রবল দাবদহের মধ্যেই মোতায়েন থেকেছে। তিনি মনে করিয়ে দিয়েছেন গরমকালে সেখানের তাপমাত্রা থাকে ৪০-৫০ ডিগ্রি সেলসিয়াস। একই সঙ্গে তিনি জওয়ানদের আত্মবলিদানের কথাও তুলে ধরেন। 

প্রকৃত নিয়ন্ত্রণ রেখা নিয়ে বার্তা 
রাষ্ট্রপতি ৭২তম সাধারণতন্ত্র দিবস উপলক্ষ্যে জাতির উদ্দেশ্যে ভাষণে সীমান্ত ইস্যুতে রীতিমত কড়া বার্তা দিয়েছেন। তিনি বলেছেন, শান্তিপূর্ণভাবে আলোচনা করে ভারত সমস্যার সমাধান চায়। কিন্তু প্রয়োজনে দেশের নৌবাহিনী, সেনা বাহিনী ও বিমান বাহিনী কড়া পদক্ষেপ নিয়ে পিছপা হবে না। যে কোনও মূল্যেই দেশের জাতীয় স্বার্থ সুরক্ষিত রাখা হবে। চিনের নাম না নিয়ে তিনি বলেন, বিগত বছরটি ছিল প্রতিকূলতার সময়। সেইসময় অনেকগুলি ফ্রন্ট থেকে সম্প্রসারণবাদী পদক্ষেপের মুখোমুখি হতে হয়েছিল ভারতকে। কিন্তু দেশের বীরসেনারা তা রুখে দিয়েছে। গ্যালওয়ানে ২০ জওয়ানের মৃত্যুর কথাও স্মরণ করেন তিনি। একই সঙ্গে তিনি বলেন দেশ সাহসী সৈনিকদের প্রকি কৃতজ্ঞ থাকবে। 

মহামারি নিয়ে বার্তা 
মহামারির সঙ্গে লড়াই করার জন্য টিকাকর্মসূচিতে অংশগ্রহণ করার জরুরি বলেও বার্তা দিয়েছেন রাষ্ট্রপতি। তিনি  বলেন প্রশাসন ও স্বাস্থ্য পরিষেবাগুলি ক্লিনিক্যাল টেস্ট  সফল করতে সম্পূর্ণ প্রস্তুতি নিয়ে কাজ করছে। আর সেই কারণেই দেশবাসীকে লাইফলাইনটি কাজে লাগানোর আবেদন জানিয়েছেন তিনি। বলেছেন, গাইডলাইন মেনে ভ্যাকসিন গ্রহণ করার কথা।