নতুন লোকসভা গঠনের পর মন্ত্রীদের নিজ নিজ দফতরে সকাল সকাল উপস্থিত থাকার পরামর্শ দিয়েছিলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। শুধু তাই নয়, বাড়ি বাড়ি বসে কাজ করার বদলে সংশ্লিষ্ট দফতরে এসে কাজ করার পরামর্শ দিয়েছিলেন নরেন্দ্র মোদী। প্রসঙ্গত এবারের লোকসভা নির্বাচনে আগের থেকেও বেশি ভাল ফল করেছে বিজেপি আর সেইকারণে  অনেকে মনে করেছিলেন যে আরও  শক্ত হাতে দেশের হাল ধরতেই তৎপর হয়ে উঠেছেন মোদী। 

তবে এবার সংসদে মন্ত্রীদের গড় হাজিরা নিয়ে নড়েচড়ে বসলেন প্রধানমন্ত্রী। বিজেপির সংসদীয় বৈঠকে যে যে মন্ত্রীরা অনুপস্থিত থাকছে, তাঁদের নামের তালিকা চেয়ে পাঠালেন নরেন্দ্র মোদী। একটি বৈঠকে সংসদ বিষয়ক মন্ত্রী প্রহ্লাদ যোশীকে মোদী নির্দেশ দেন, সংসদে কাজের দায়ভার থাকা সত্ত্বেও যাঁরা সংসদে গড় হাজির থাকছেন তাঁদের নামের একটি তালিকা পেশ করার নির্দেশ দিয়েছেন তিনি। 

বাণিজ্যিক সারোগেসি রুখতে লোকসভায় পেশ হল বিল, ঘনিষ্ঠ আত্মীয়কেই হতে হবে সারোগেট মা

প্রসঙ্গত, এর আগেও বিজেপি নেতাদের সঙ্গে বৈঠকে দলের সাংসদদের 'রাজনীতি উর্ধ্বে গিয়ে কাজ' করার পরামর্শ দিয়েছেম মোদী। এই প্রসঙ্গে দেশে সাম্প্রতিক কালে বাড়তে থাকা জলসংকট দূর করার লক্ষ্যে দলের সাংসদদের সংশ্লিষ্ট নির্বাচনী এলাকায় থাকা দলীয় আধিকারিকদের সঙ্গে আলোচনায় বসার পরামর্শ দেন প্রধানমন্ত্রী। তিনি আরও পরামর্শ দেন যে দলের সকলকে একটা 'লক্ষ্য'-কে সামনে রেখে কাজ করে চলতে হবে। পাশাপাশি সম্প্রতি ভ রতের একাধিক জায়গায় যক্ষা এবং কুষ্ঠর মতো ব্যধি ছড়িয়ে পড়া রুখতে কার্যকর ব্যবস্থা গ্রহণেরও পরামর্শ দিয়েছেন নরেন্দ্র মোদী।