Asianet News BanglaAsianet News Bangla

NFHS-NFHS-র পঞ্চম পর্বের সমীক্ষার রিপোর্ট প্রকাশ,পুরুষের তুলনায় মহিলাদের তামাক সেবন ও মদ্যপানের সংখ্যা কম

২০২৯ থেকে ২০২১ সালের মধ্যে ১৫ থেকে ৪৯ বছরের ৭.২৪ লাখ মহিলা ও পুরুষের ওপর এই সমীক্ষা চালায় ন্যাশনাল ফ্যামিলি হেলথ সার্ভে। ৩৮ শতাংশ পুরুষ তামাক সেবন করে থাকে আর ১৮.৮ শতাংশ পুরুষ মদ্যপানে আসক্ত।

National Family Health Survey 5 Report Says,38 Percent Men Using Tabaco and 18.8 Percent Men Like Alcohol In India,
Author
Kolkata, First Published Nov 30, 2021, 5:05 PM IST
  • Facebook
  • Twitter
  • Whatsapp

তামাক সেবন(Taking Tobaco) ও মদ্যপানে(drinking alchohol) আসক্ত মানুষের সংখ্যাটা নেহাতই কিছু কম নয়। সম্প্রতি ন্যাশনাল ফ্যামিলি হেলথ সার্ভে(NFHS)র তরফে ভারতে একটি সমীক্ষা করা হয়। আর সেই সমীক্ষায় উঠে আসে একটি গুরুত্বপূর্ণ তথ্য। জানা যাচ্ছে, আমাদের দেশে অর্থাৎ ভারতের(India) এক তৃতীয়াংশ পুরুষ অর্থাৎ ৩৮ শতাংশ পুরুষ তামাক সেবন(38% Men Using Tobaco) করে থাকে আর ১৮.৮ শতাংশ পুরুষ মদ্যপানে(18.8 % Men Like Alchohol) আসক্ত।  ন্যাশনাল ফ্যামিলি হেলথ সার্ভের পঞ্চম পর্বের সমীক্ষায়(5th NFHS) তামাক সেবন(Using Tobaco) ও মদ্যপানের (Drinking alchohol) বিষয়টিতে বিশেষভাবে নজর দেওয়া হয়। ২০২৯ থেকে ২০২১ সালের মধ্যে ১৫ থেকে ৪৯ বছরের ৭.২৪ লাখ মহিলা ও পুরুষের ওপর এই সমীক্ষা চালায় ন্যাশনাল ফ্যামিলি হেলথ সার্ভে(NFHS)। এই সমীক্ষা থেকে উঠে আসা তথ্য অনুযায়ী,পুরুষের তুলনায় মহিলাদের তামাক সেবন ও মদ্যপানের সংখ্যা অনেকটাই কম। সমীক্ষার রিপোর্ট অনুযায়ী,১৫ বছরের উর্ধ্বে মহিলাদের মধ্যে ৮.৯ শতাংশ মহিলা তামাক সেবন করে থাকে ও ১.৩ শতাংশ মহিলা মদ্যপান করে থাকেন। গ্রাম্য এলাকাতেই তামাক সেবন ও মদ্যপানের পরিমান অনেকটাই বেশি,এমন তথ্যই উঠে এসেছে ন্যাশনাল ফ্যামিলি হেলথ সার্ভের পঞ্চম পর্বের সমীক্ষায়। এমনকি গুজরাটকে(Gujrat) যেখানে ড্রাই স্টেট(Dry State) হিসাবে চিহ্নিত করা হয় সেখানেও ৫.৮ শতাংশ পুরুষ মদ্যপান করে থাকে। 

রাজ্য ভিত্তিক সমীক্ষা আবার অন্য কথা বলছে। জনসংখ্যার বিচারেই যদি ধরতে হয়, তবে বলতে হবে অরুণাচল প্রদেশের মানুষ সবথেকে বেশি মদ্যপান করে ও লাক্ষাদ্বীপের মানুষ সবথেকে কম মদ্যপান করে। বেশ কিছু রাজ্যে মদ্যপান নিষিদ্ধ করেছে সংশ্লিষ্ট রাজ্য সরকার। তবে এই রাজ্যগুলিতেও মদ্যপান চলছে বলে এই সমীক্ষায় উঠে এসেছে। গুজরাট ও বিহারে মদ্যপান নিষিদ্ধ। কিন্তু বিহারে ১৫.৫ শতাংশ পুরুষ ও গুজরাটে ৫.৮ শতাংশ মানুষ মদ্যপান করে বলে এই সমীক্ষা দাবি করেছে। অরুণাচলে সব থেকে বেশি মানুষ মদ্যপান করেন। সে রাজ্যে ৫২.৭ শতাংশ পুরুষ মদ্যপান করে ও ২৪.২ শতাংশ মহিলা মদ্যপান করে। তেলেঙ্গনাতে ৪৩.৩ শতাংশ পুরুষ মদ্যপান করে ও ৬.৭ শতাংশ মহিলা মদ্যপান করে। সিকিমে ৩৯.৮ শতাংশ পুরুষ ও ১৬.২ শতাংশ মহিলা মদ্যপান করে থাকেন।

আরও পড়ুন-Liquor price Hike-অসমে মহার্ঘ্য হচ্ছে মদ,১০ থেকে ১৫ শতাংশ বাড়ছে আবগারি শুল্ক

আরও পড়ুন-Liquor-সুরাপ্রেমীদের জন্য সুখবর,রাজ্য সরকারের অনলাইন পোর্টাল থেকেই জানা যাবে সুরার দাম,জেনে নিন কিভাবে

আন্দামান নিকোবর দ্বীপপুঞ্জে ৩৯.১ শতাংশ পুরুষ ও মাত্র ৫ শতাংশ মহিলা মদ্যপান করেন। অন্যদিকে মহারাষ্ট্রে ১৩.৯ শতাংশ পুরুষ ও মাত্র ০.৪ শতাংশ মহিলা মদ্যপান করেন। রাজস্থানে এই সংখ্যা আরও কম। রাজস্থানে ১১ শতাংশ পুরুষ ও ০.৩ শতাংশ মহিলা মদ্যপান করেন। জম্মু কাশ্মীরে ৪.৪ শতাংশ পুরুষ ও ০.২ মহিলা মদ্যপান করেন। লাক্ষাদ্বীপে ০.৪ শতাংশ পুরুষ ও ০.৩ শতাংশ মহিলা মদ্যপান করেন। অন্যদিকে, দেশের বেশিরভাগ রাজ্যে সিংহভাগ রাজস্বই আসে আবগারি রাজস্ব থেকেই। সেই রাজস্ব বৃদ্ধির লক্ষ্যে পশ্চিমবঙ্গ ও অসম সরকার ভিন্ন নীতি গ্রহণ করেছে। অসমে রাজস্ব বাড়াতে বিদেশি মদের উপর শুল্ক বৃদ্ধি করেছে অসম সরকার। অন্যদিকে ঠিক উল্টো কাজ করা হয়েছে বাংলায়। বিদেশি মদের উপর শুল্ক কমানো হয়েছে। উভয় রাজ্য সরকারই মনে করছে, এরফলে রাজস্ব আয়ের পরিমাণ আরও বাড়বে।

Follow Us:
Download App:
  • android
  • ios