দ্বিতীয় দফায় 'রুপে কার্ড' উদ্বোধন করে উচ্ছসিত প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। এই উদ্বোধন অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন ভূটানের প্রধানমন্ত্রী লোটে শেরিং। এই কার্ডটি প্রবর্তন করে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী বলেন ভূটানের ন্যাশানাল ব্যাঙ্কের জারি করা এই রুপে কার্ডগুলির মাধ্যমে বিশেষ সুবিধে পাবেন ভারতে আসা ভূটানের পর্যটক ও ব্যবসায়ীরা। তিনি আরও বলেন ব্যবসায়ীক লেনদেন ও ক্রয় বিক্রয়কে আরও অনেকটাই সহজ করে তুলবে এই রুপে কার্ড। 


এদিন রুপে কার্ড উদ্বোধন করে তিনি বলেন ইতিমধ্যেই রুপে কার্ডের মাধ্যমে ১১ হাজার সফল লেনদেন হয়েছে দুটি দেশের মধ্যে। করোনা মহামারির জন্য প্রায় স্তব্ধ ছিল অর্থনীতি। নাহলে লেনদেনের পরিমাণ আরও বাড়ে যেত বলেও আশা প্রকাশ করেন তিনি। লেনদেনকে আরও সহজ করতেই রুপে কার্ডের প্রচলন করা হচ্ছে বলেও জানিয়েছেন তিনি। 

প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী জানিয়েছেন, আগামী বছরই ইসরোর সাহায্য ভূটানের উপগ্রহকে মহাকাশে পাঠান হবে। সেই প্রকল্পের কাজ চলছে দ্রুত গতিতে। চলতি বছর ডিসেম্বরেই ভূটানের চার স্পেস ইঞ্জিনিয়ার ভারতে আসবেন। তাঁরা খতিয়ে দেখবেন ইসরোর কাজ। ভূটানের চার যুবকেও স্বাগত জানিয়েছেন তিনি। 

প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী বলেন ভারত-ভূটান দুটি দেশই শাস্তি প্রক্রিয়া বজায় রাখতে কার্যকরী অবস্থান গ্রহণ করেছে।। দুটি দেশ নিজেদের মধ্যে সম্পর্ক বাড়ানোর ক্ষেত্রেও জোর দিয়েছে। উভয় দেশই প্রতিষ্ঠানগুলিকে সাহায্য করার বিষয়ে আলোচনা করেছে বলেও জানিয়েছেন তিনি। তিনি আরও বলেন ভারত বেসরকারি উদ্যোগের জন্য তার মহাকাশ খাত চালু করেছে। এটি ক্ষমতা উদ্ভোবন ও দক্ষতাকে প্রচার করবে।। রুপে কার্ড উদ্বোধনের সময় প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী তৃতীয় আন্তর্জাতিক গেটওয়েতে বিএসএনএল-এর সঙ্গে ভূটানের চুক্তিকে স্বাগত জানিয়েছেন।