ফের মহাকাশে পারি দিল ইসরো। চন্দ্রযান ২-এর সফল উৎক্ষেপনের পর বুধবার বিকালে পিএসএলভি সি৪৮ রকেটের মাধ্যমে ইসরো অন্যান্য দেশের ৯টি উপগ্রহ-সহ আরও নিজেদের রিস্যাট -২ বিবিআর১ উপগ্রহ-কে পাঠালো মহাকাশে। শুধু তাই নয়, ইসরোর রকেট এই দশটি উপগ্রহকেই সফলভাবে তাদের কক্ষপথেও বসাতে সফল হল। 

বুধবার (১১ ডিসেম্বর), বিকাল সাড়ে তিনটেয় ওড়িশার শ্রীহরিকোটার সতীশ ধাওয়ান স্পেস সেন্টার থেকে ওই ১০টি উপগ্রহ নিয়ে উৎক্ষিপ্ত হয় পিএসএলভি-সি৪৮ রকেট। মিনিট ৩০ পরেই ইসরো জানায় তাদের রকেট উপগ্রহগুলিকে সঠিক কক্ষপথে বসিয়ে দিয়েছে। পিএসএলভি-সি৪৮ রকেট থেকে রিস্যাট -২ বিবিআর১ উপগ্রহের বিচ্ছিন্ন হওযার একটি ছবিও তারা শেয়ার করেছে।

রিস্যাট -২ বিবিআর১ একটি রাডার ইমেজিং উপগ্রহ যা মহাশূন্য থেকে পৃথিবী-কে পর্যবেক্ষণের কাজে লাগানো হবে। অর্থাৎ রেডারের মাধ্যমে উপর থেকে নজরদারি চালাতে পারবে ভারত। শত্রু দেশের কোনও রকম সন্দেহজনক পদক্ষেপ ধরা পডড়ে যাবে এই উপগগ্রহের চোখে। এই কারণেই প্রায় ৬২৮ কিলোগ্রাম ওজনের এই উপগ্রহকে স্পাই স্যাটেলাইট বা গুপ্তচর উপগ্রহ বলা হচ্চে। সামরিক সহায়তার পাশাপাশি কৃষি, বিপর্যয় মোকাবিলা, আবহাওয়ার পূর্বাভাষ দেওয়ার মতো কাজেও লাগবে এই উপগ্রহ।

এদিন আরআইএসএটি-২বিআর১ উপগ্রহের সঙ্গে ইসরাইল, ইতালি, জাপান ও মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের মোট ৯টি উপগ্রহকে সঠিক কক্ষপথে নিয়ে গেল ইসরোর রকেট। এগুলির মধ্যে মার্কিন উপগ্রহই রয়েছে ৬টি, আর একটি করে উপগ্রহ রয়েছে বাকি তিন দেশের।

এই রকেটটির উৎক্ষেপন ও উপগ্রহগুলিকে সঠিক কক্ষপথে প্রেরণ করার কাজটি যাতে সফল হয়, তার জন্য মঙ্গলবারই ইসরোর চেয়ারম্যান কে শিবন তামিলনাড়ুর বিখ্যাত তিরুপতি বালাজি মন্দিরে পুজো দেন। এর আগে চন্দ্রযান ২-এর উৎক্ষেপণের আগেও শিবনকে বালাজি মন্দিরে পুজো দিতে দেখা গিয়েছিল। একজন বিজ্ঞানী কীকরে পুজো আচ্চায় বিশ্বাসী হন, এই প্রশ্ন তুলে তাঁর সেইসময় যথেষ্ট সমালোচনা হয়েছিল। বালাজী মন্দিরে পুজো দিয়েও চন্দ্রযানের বেলায় শেষ হয়নি। তবে এদিনের মহাকাশ অভিযান কিন্তু পুরোপুরি সফল।