দেশের প্রায় ৩৩ কোটি পড়ুয়ার জন্য সুখবর। আগাস্ট মাসের পর খুলতে পারে স্কুল ও কলেজ। তেমনই জানিয়েছেন দেশের  মানব সম্পদ উন্নয়ন দফতরের মন্ত্রী রমেশ পোখরিয়াল। তিনি আরও বলেছেন আগামী ১৫ই অগাস্টের পর স্কুল খোলার চেষ্টা করা হচ্ছে। তবে এই পরিস্থিতির মধ্যেও বেশ কয়েকটি পরীক্ষা চলছে বলেও জানিয়েছেন তিনি। 

তবে স্কুল কলেজ খোলা হলেও কঠোর স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলতে হবে বলেও জানিয়েছেন তিনি। স্বাস্থ্যবিধি সম্পূর্ণভাবে মানা হচ্ছে কিনা তাও স্পষ্ট করে জানাতে হবে স্কুলের শিক্ষকদের। সর্বোপরি নিরাপদ নির্দেশিকা ছাপিয়ে দেওযার ব্যবস্থা করতে হবে সংশ্লিষ্ট জেলা প্রশাসনকেও। এবং তা প্রচারের ওপরেও জোর দিতে হবে বলেও জানিয়েছেন তিনি। করোনাভাইরাসের সংক্রমণের কারণে গত ১৫ মার্চ থেকে দেশের সরকারি বেসরকারি সমস্ত শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বন্ধ রয়েছে। লকডাউনের নিয়ম শিথিল হলেও খোলা হয়নি কোনও স্কুল। এই পরিস্থিতিতে অভিভাবকদের মধ্যে স্কুল কবে থেকে খুলবে তা নিয়ে জল্পনা বাড়ছিল। 

এরআগেও জুলাই মাসে স্কুল খোলার কথা হয়েছিল। সেই সময় জানান হয়েছিল নিরাপদ স্বাস্থ্য বিধি ও নিরাপদ দূরত্ব মেনেই খোলা হবে স্কুল কলেজ। প্রথমে মাত্র ৩০ শতাংশ পড়ুয়ার উপস্থিতির ওপর জোর দেওয়া হয়েছিল। বলা হয়েছিল ৯-১২ পর্যন্ত শ্রেনীর পড়ুয়ারা স্কুলে উপস্থিত থাকতে পারবে। বাকিদের বাড়ি থেকেই পড়ুশুনা চালিয়ে যাওয়ার ওপর জোর দেওয়া হয়েছিল। তবে দেশে করোনা ভাইরেসের সংক্রমণ এখনও আয়ত্বে আসেনি। তাই কিছুদিনের মধ্যেই বিবৃতি জারি করে জানান হয়েছিল এধরনের কোনও সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়নি।