জম্মু ও কাশ্মীরের বিশেষ মর্যাদা প্রদানকারী ৩৭০ এবং ৩৫এ ধারা রদের সিদ্ধান্ত নেওয়ার পর থেকে একের পর এক কংগ্রেসের নেতাদের বিরুদ্ধে আক্রমণ শানিয়েছে ভারতীয় জনতা পার্টি। আর এবার মধ্যপ্রদেশের প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী শিবরাজ সিং চৌহ্বান-এর জবানিতে উঠে এল এক চাঞ্চল্যকর মন্তব্য। এবার তিনি নিশানা করলেন স্বাধীন ভারতের প্রথম প্রধানমন্ত্রী জওহরলাল নেহেরুকে। 

সংবাদ সংস্থাকে দেওয়া সাক্ষাতকারে বর্ষীয়ান এই কংগ্রেস নেতা জওয়ার নেহেরুকে 'ক্রিমিনাল' বলে দাবি করেন। পাশাপাশি শনিবার ওড়িশায় খুরদার একটি সভায় বক্তব্য পেশ করতে গিয়ে শিবরাজ সিং চৌহান দাবি করেন, কাশ্মীর সমস্যার জন্য 'অপরাধী' হলেন জওহরলাল নেহেরু। এদিন তিনি আরও দাবি করেন, ভারতীয় সেনাবাহিনী যখন পাকিস্তান অনুপ্রবেশকারীদের কাশ্মীর থেকে তাড়িয়ে দেওয়ার চেষ্টায় ছিল, ঠিক তখনই তিনি সংঘর্ষ-বিরতি ঘোষণা করেন। কাশ্মীরের এক-তৃতীয়াংশ পাকিস্তান দখল করেনিয়েছিল। যদি আরও কয়েকদিন সংঘর্ষ বিরতি ঘোষণা না করা হত, তাহলে পুরো কাশ্মীরই ভারতের হত। 

এখানেই থেমে যাননি তিনি, তাঁর আরও দাবি, তাঁর দ্বিতীয় অপরাধ ছিল ৩৭০ ধারা। একই দেশে দুই পতাকা, দুই আইন এবং দুই প্রধান থাকা কখনওই সঠিক বিচার নয়। জম্মু ও কাশ্মীরের বিশেষ মর্যাদা প্রদানকারী ৩৭০ ধারা বিলোপ এবং জম্মু ও কাশ্মীর এবং  লাদাখ-কে দুটি আলাদা কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলের সিদ্ধান্ত নেওয়ার পরই শিবরাজ সিং চৌহানের এই মন্তব্য প্রকাশ্যে এল।