ন্যায়বিচারের স্বার্থে চাই দ্রুত শুনানি। তাই আগামী শুক্রবারই রাজধানীতে হিংসার ঘটনায় দিল্লি হাইকোর্টকে শুনানির নির্দেশ দিল সুপ্রিম কোর্ট। সেদিনই হিংসা সংক্রান্ত সমস্ত আর্জি দিল্লি হাইকোর্টকে গ্রহণ করতে বলেছে শীর্ষ আদালত। এর আগে দিল্লি হিংসার মামলার শুনানি এক মাস পিছিয়ে দিয়েছিল হাইকোর্ট। যা অন্যায় বলে মন্তব্য করেছেন সুপ্রিমকোর্টের প্রধান বিচারপতি এস এ বোবদের নেতৃত্বাধীন ডিভিশন বেঞ্চ। 

কেন্দ্র দিল্লির হিংসা সম্পর্কিত মামলার বিষয়ে আরও কিছুদিন সময় চেয়েছিল। সেই আবেদন এদিন খারিজ করে দিয়েছে সুপ্রিম কোর্ট। সেই আবেদন খারিজ করে শীর্ষ আদালত জানায়, বিজেপি নেতাদের বিদ্বেষমূলক বক্তব্যের বিরুদ্ধে করা আবেদন সহ দিল্লিতে হিংসা সম্পর্কিত সমস্ত মামলার আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে ওই দিনই দিল্লির আদালতে শুনানি হওয়া উচিত।

প্রধান বিচারপতি বোবদে বলেন, "আমরা বিচারের স্বার্থে এই মামলাগুলি শুক্রবার দিল্লি হাইকোর্টের প্রধান বিচারপতির অধীনে মামলার তালিকাভুক্ত করার কথা বলছি ।  আমাদের অনুরোধ, হাইকোর্ট এই মামলাগুলির যতটা সম্ভব দ্রুততার সঙ্গে সমাধান করুক"।

গত সপ্তাহেই নাহরিকত্ব সংশোধনী আইনকে কেন্দ্র করে দুই গোষ্ঠীর মধ্যে সংঘর্ষে উত্তপ্ত হয়ে উঠেছিল রাজধানী দিল্লির উত্তর-পূর্ব প্রান্ত। দিল্লির এই অশান্তির জেরে প্রাণ হারান কমপক্ষে ৪৬ জন। আহতের সংখ্যা তিনশোর বেশি। তারপরেই ন্যায়বিচার চেয়ে দিল্লি হাইকোর্টের দ্বারস্থ হয়েছিল মৃতদের পরিবার। কিন্তু সেখানে মামলার শুনানির দিন পিছিয়ে দেওয়ায় শীর্ষ আদালতের দ্বারস্থ হন তাঁরা। সেই আবেদনের ভিত্তিতেই দিল্লি হাইকোর্টকে সুপ্রিম নির্দেশ দিল শীর্ষ আদালত।