জি ২০ সম্মেলনে অংশ নিতে আজ সকালে জাপানের মাটিতে পা রাখলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। ওসাকায় ২৮ থেকে ২৯ জুন তারিখ পর্যন্ত এই সম্মেলন অনুষ্ঠিত হতে চলেছে। সূত্রের খবর, এবারের জি ২০ সম্মেলনে নারীর ক্ষমতায়ন, কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তা, এবং সন্ত্রাসবাদ দমনের ওপর মূলত আলোকপাত করা হবে বলে। 

 

এছাড়াও জাপানের প্রধানমন্ত্রী শিনজো আবের সঙ্গেও একটি বৈঠকে অংশ নেওয়ার কথা রয়েছে প্রধানমন্ত্রীর। পাশাপাশি মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের সঙ্গেও একটি দ্বিপাক্ষিক আলোচনায় অংশ নেবেন নমো।  মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র ছাড়াও রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন-সহ আরও অনেক দেশের সঙ্গেই বৈঠকে মোদী অংশ নেবেন বলে জানা গিয়েছে।

এই প্রসঙ্গে নরেন্দ্র মোদী জানিয়েছেন যে, ওসাকায় এই দু-দিন ব্যাপি জি২০ সামিটে অংশ নেওয়া একটি উল্লেখযোগ্য পাথেয় হয়ে থাকবে, কারণ ২০২২ সালেই ভারতে অনুষ্ঠিত হতে চলেছে জি ২০ সামিট। আর সেই কারণেই এবারের জি ২০ সম্মেলন ভারতের জন্য আগামী দিনের সোপান হয়ে থাকবে, কারণ সেই বছরেই ভারতের ৭৫ তম স্বাধীনতা দিবসও উদযাপন করা হবে। সুতরাং বোঝাই যাচ্ছে ২০২২-এর জি ২০ সম্মেলন ভারতের জন্য খুবই গুরুত্বপূর্ণ হতে চলেছে। মোদী আরও জানিয়েছেন, এই সম্মেলন আন্ত্রর্জাতিকক্ষেত্রে জোটবদ্ধতার যে নীতি তাকে আরও পুনরায় শক্তিশালী করে তুলতা সাহায্য করবে, যা আজকের দ্রুত পরিবর্তনশীল বিশ্বের নিয়ম-ভিত্তিক আন্তর্জাতিক আদেশ সংরক্ষণের জন্য অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ  ভুমিকা পালন করবে।