প্রখ্যাত রাশিয়ার বিরোধী নেতা অ্যালেক্সেই নাভালনির ওপর বিষপ্রয়োগের অভিযোগ তুললেন তাঁর সমর্থকরা। জেলে বন্দি থাকা অবস্থায় সোমবার আচমকাই অসুস্থ হয়ে পড়েন নাভালনি। তাঁকে তড়িঘড়ি নিয়ে যাওয়া হয় মস্কোর একটি হাসপাতালে। তাঁর শরীরে বিষ থাকার কথা নিশ্চিত করেছেন চিকিৎসকরা। 

তাঁকে চিকিৎসার পরেই নাভালনিরকে ছেড়ে দেওয়া হয় মস্কোর হাসপাতাল থেকে। কিন্তু তার পর ফের তাঁকে কারাগারে নিয়ে যাওয়া হয় বলে অভিযোগ। নাভালনির মুখপাত্র সূ্ত্রে খবর, সোমবার আচনকাই  জেলের মধ্যে অসুস্থ হয়ে পড়েন তিনি। প্রাথমিকভাবে তাঁর শরীরে অ্যালার্জির বিক্রিয়া দেখা দেয় বলে জানা গিয়েছে। তাঁর মুখ এবং ত্বকে ফোলা ভাব দেখা দেয় এবং ত্বক লাল হয়ে যায় বলেও জানা গিয়েছে। তাঁর মুখপাত্র আরও জানিয়েছেন  এমন অ্যালার্জির বিক্রিয়া তাঁর শরীরে এর আগে কখনও হয়নি। তাঁর সমর্থকদের দাবি তাঁর শরীরে বিষ প্রয়োগ করাহয়েছে।

প্রসঙ্গত, শনিবার কোনও অনুমতি ছাড়াই সরকারের বিরুদ্ধে বিক্ষোভ আন্দোলনে সামিল হওয়ার কারণে নাভালনিকে গ্রেফতার করে রুশ পুলিশ। তাঁর ৩০ দিনের জেল হেফাজতের নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। পাশাপাশি গ্রেফতার করা হয়, বিক্ষোভে অংশগ্রহণকারী প্রায় ১৩০০জনকেও গ্রেফতার করেছে পুলিশ। নাভালনি নিজেও দাবি করেছেন যে, জেলে থাকা অবস্থাতেই তাঁর শরীরে বিষ প্রয়োগ করা হয়েছে। তাঁর প্রাণনাশ করার চেষ্টা করা হয়েছে বলে আশঙ্কা প্রকা করেছেন তাঁর সমর্থকরা।