প্রতি বছর শীতকালীন প্রধান সমস্যা হল কুয়াশাচ্ছন্ন অবস্থায় ড্রাইভ করা। এই সময়েই কাজের চাপ কাটাতে পরিবারের সঙ্গে ছুটি কাটানোর মুডে থাকেন সকলে। আর যত বিপত্তি ঘটে এই সময়েই। ভোরের দিকেই হোক বা সন্ধ্যের পর থেকে কুয়াশাচ্ছন্ন অবস্থায় গাড়ি চালানো খুবই সমস্যায়। যে কোনও সময় ঘটে যেতে পারে বড়সড় দুর্ঘটনাও। তা বলে কী ঠান্ডায় ঘুরতো যাওয়া বন্ধ! মোটেই নয়, তাই কুয়াশার মধ্যেও সুরক্ষিত ভাবে গাড়ি চালাতে মেনে চলুন কয়েকটি সহজ নিয়ম। 

আরও পড়ুন- পারফিউমের গন্ধ কীভাবে দীর্ঘস্থায়ী করবেন, জেনে নিন সেই ফান্ডা

১) ঘন কুয়াশাচ্ছন্ন অবস্থায় গাড়ি চালানোর সময় কখনোই দুমদাম করে লেন পরিবর্তন করবেন না। এর ফলে যে কোনও সময়ে ঘটে যেতে পারে, মারাত্মক বিপত্তি।

২)  ঘন কুয়াশায় যদি গাড়ি চালাতে খুব অসুবিধে হয় আর হাতে সময় থাকে তবে রাস্তার পাশে সুরক্ষিত স্থানে কিছুক্ষণ অপেক্ষা করুন। কুয়াশা হালকা হয়ে এলে আবার যাত্রা শুরু করুন।

৩) ঘন কুয়াশাচ্ছন্ন অবস্থায় গাড়ি কখনোই জোরে চালাবেন না। গাড়ির গতি নিয়ন্ত্রণে রাখুন। ২৫-৩০ কিমি প্রতি ঘন্টায় গতিবেগ রাখুন। দুর্ঘটনা এড়াতে ধীর গতিতে এগনোই শ্রেয়।

৪) কুয়াশার মধ্যে গাড়ি চালানোর সময় হ্যাজার্ড আলোর ব্যবহার করবেন না। তবে যদি কোথাও গাড়ি দাঁড় করিয়ে রাখেন তখন অবশ্যই এই আলোর ব্যবহার করুন। তবে চালানোর সময় হ্যাজার্ড আলোর ব্যবহারে অন্য গাড়ি দিক ভ্রান্ত হতে পারে, ফলে দুর্ঘটনা ঘটার সম্ভাবনা থাকে। 

৫) এমন অবস্থায় সুরক্ষিত থাকার জন্য ফগ ল্য়াম্পের ব্যবস্থা করতে পারেন। এতে কুয়াশার মধ্যে সবথেকে সুরক্ষিত ভাবে গাড়ি চালানো যায়।