সঞ্জীব কুমার দুবে, পূর্ব মেদিনীপুর: মেয়েদের মধ্যে রাজ্যে প্রথম কাঁথির দেবস্মিতা মহাপাত্র। রাজ্য়ে সবার মধ্য়ে তৃতীয় স্থান অর্জন করেছে পূর্ব মেদিনীপুর জেলার দেবস্মিতা মহাপাত্র। দেবস্মিতা পূর্ব মেদিনীপুর জেলার ভবানীচক হাইস্কুলের ছাত্রী। মাধ্যমিকে তার প্রাপ্ত নম্বর ৬৯০। পশ্চিমবঙ্গের মধ্যে দেবস্মিতা মেয়েদের মধ্যে প্রথম স্থান অর্জন করেছে। ই

তিমধ্যেই দেবস্মিতার সাফল্যের খবর গোটা এলাকায় ছড়িয়ে পড়তে ব্যাপক উৎসাহের চেহারা নিয়েছে । দেবস্মিতার মা স্বপ্না মহাপাত্র ও বাবা দেবাশিস মহাপাত্র দুজনেই হাইস্কুলের ভূগোলের শিক্ষক। দেবস্মিতার দাদা রবীন্দ্রভারতী বিশ্ববিদ্যালয়ে বর্তমানে ইংলিশ অনার্স নিয়ে পড়ছে।

দেবস্মিতা জানিয়েছে এই  ফল তার কাছে একেবারে অপ্রত্যাশিত। সাড়ে ৬০০ কাছে আশা করেছিল সে। তবে এরকম মেধা তালিকায় যে তার নাম যে তিন নম্বরে আসবে তা ভাবতে পারেনি। আগামী দিনে জিও সায়েন্স নিয়ে পড়তে চায় দেবস্মিতা। ভবিষ্য়তে মনোবিদ হতে চায় সে।

 ভবানীচক হাইস্কুলের ছাত্রী জানিয়েছে, কোনও দিন  নিয়ম মেনে ১০ ঘণ্টা পড়াশোনা করেনি  সে। ছোট থেকেই ইচ্ছে হলেই পড়তে বসেছে। এবার মাধ্যমিকের  প্রস্তুতির সময়ও তার ব্যতিক্রম ঘটেনি। ধরা বাধা ছকে কোনওদিনও তারপক্ষে পড়াশোনা করা সম্ভব হয়নি। হয়তো পরীক্ষায় তারই ফল পেয়েছে দেবস্মিতা।