ভোটের দিনক্ষণ তখনও ঘোষণা হয়নি। তার আগেই বড় ঘোষণা করছিলেন রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। পশ্চিমবঙ্গ নগর কর্মসংস্থান প্রকল্পের আওতায় দিনমজুরদের মজুরি বৃদ্ধির কথা ঘোষণা করেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। এর ফলে রাজ্যে প্রায় ৫৬ হাজার শ্রমিক উপকৃত হবেন বলেও জানান হয়েছে। দুপুর ৩টে ২৭ মিনিট নাগাদ সোশ্যাল মিডিয়ায় বার্তা দিয়ে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় এই পদক্ষেপের কথা জানিয়েছিলেন। আর বিকেল সাড়ে ৪টে নাগাদ পশ্চিমবঙ্গসহ চার রাজ্য ও পুদুচেরিতে নির্বাচনের দিন ঘোষণা করে কমিশন। 

ফিরে দেখুন ২০১৬ বিধানসভা নির্বাচনের ফলাফল, এবার নবান্ন দখল বড় চ্যালেঞ্জ তৃণমূল-বিজেপি আর জোটের কাছ

ভোট বাংলার দায়িত্বে আবারও আসছেন অজয় নায়েক আর বিবেক দুবে, নজিরবিহীন এবার দুই পুলিশ পর্যবেক্ষক ...

সোশ্যাল মিডিয়ায় বার্তা দিয়ে মুখ্যমন্ত্রী জানিয়েছেন রাজ্যের আর্বান এমপ্লয়মেন্ট প্রকল্পের সঙ্গ জড়িত দিনমজুরদের মজুরি বৃদ্ধি করা হচ্ছে। অদক্ষ শ্রমিকরা আগে পেতেন দৈনিক ১৪৪ টাকা। নয়া ঘোষণা অনুযায়ী এবার থেকে তাঁরা পাবেন ২০২ টাকা। স্বল্প দক্ষ শ্রমিকরা আগে পেলেন ১৭২ টাকা। এবার থেকে তাঁরা পাবেন ৩০৩ টিকা। দক্ষ শ্রমিকদের মজুরি বেড়ে হয়েছে ৪০৪ টাকা।  তিনি আরও জানিয়েছেন এই প্রকল্পের মাধ্যমে রাজ্যে উপকৃত হওয়া ৫৬,৫০০ শ্রমিকের মধ্যে ৪০ হাজার ৫০০ অদক্ষ শ্রমিক ও ৮ হাজার করে স্বল্প দক্ষ ও দক্ষ শ্রমিক উপকৃত হবেন। চলতি বছর বাজেটেও মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় বলেছিলেন করোনাভাইরাসের কারণে অসংগঠিত ক্ষেত্রের শ্রমিকদের ক্ষতি হয়েছে। আর সেই কারণেই রাজ্যের ৪৫ হাজার শ্রমিককে ১হাজার টাকা আর্থিক সাহায্য দেওয়ার কথা ঘোষণা করেছিলেন তিনি। এবার শ্রমিকদের মজুরিও বৃদ্ধির পথে হাঁটলেন। 

শুধু এই রাজ্যই নয়। ভোটমুখী তামিলনাড়ুতেও মুখ্যমন্ত্রী পালানিস্বামী কৃষক ও দরিদ্রদের পাশে দাঁড়িয়ে সমবায় ব্যাঙ্কের সোনার ওপর নেওয়া ঋণ মকুবের কথা ঘোষণা করেছেন। কারণ হিসেবে তিনিও বলেছেন করোনা-মহামারির কারণে ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে দরিদ্ররা। তাই তাদের পাশে দাঁড়াতেই এই পদক্ষেপ গ্রহণ করা হয়েছে।