হাওয়া খেতে গিয়ে 'হাওয়া' হয়ে যেতে পারেন আপনিও। ট্রেনে উঠে দরজা,জানালা ছেড়ে বেছে নিন চারদিক ঘেরা জায়গা। কারণ যেকোনও মুহুর্তে রেলনাইনের পাথর উড়ে এসে লাগতে পারে আপনার চোখে। রবিবার সেকরমই এক ঘটনার সাক্ষী থাকলেন যাত্রীরা। চলন্ত ট্রেনে পাথর ছুরে মারাতে আহত হল সাত বছরের শিশু। যা ঘিরে রেলের যাত্রী নিরাপত্তা নিয়ে উঠছে প্রশ্ন। 

যাত্রীরা জানান, শিয়ালদহ থেকে রবিবার ৫টা ৪৬-এর বনগাঁ লোকালে ঘটেছে এই ঘটনা। ট্রেন বামনগাছি ছেড়ে দত্তপুকুরের দিকে যাওয়ার ৬টা ৫০ নাগাদ হঠাৎ জানালা থেকে একটি পাথর লাগে শিশুর মুখে। সঙ্গে সঙ্গেই মুখ ফেটে যায় শিশুর। প্রথমে যাত্রীরাই রক্ত বন্ধ করতে মুখে কাপড় চেপে ধরে শিশুর। পরে হাবড়া হাসপাতালে প্রাথমিক চিকিৎসার জন্য নিয়ে যাওয়া হয় আক্রান্ত শিশুকে। জিআরপি সুত্রে জানা গেছে, শিশুটির বয়স সাত বছর। আক্রান্তের বাড়ি অশোকনগর থানা এলাকায়। ঘটনায় যাত্রীদের মধ্যে  আতঙ্কের সৃষ্টি হয়েছে। কে বা কারা কাণ্ড ঘটাল তা নিয়ে ধন্দে রয়েছে রেল পুলিশ। 

তবে নিত্যযাত্রীদের অভিযোগ,বহুদিন ধরেই ওই এলাকায় সন্ধের পরই পরিত্যক্ত লাইনে মদের আসর বসে। সেখান থেকেই অনেকে মদ খাওয়ার পর নিত্য নতুন কাণ্ড ঘটিয়ে থাকতে পারে। এমনকী অল্পবয়সীরাও খেলার ছলে এই কাজ করে থাকতে পারে বলে অনুমান পুলিশের।  ঘটনায় জিআরপি জানিয়েছে, আহত শিশুর পরিবারের তরফে কোনও লিখিত অভিযোগ দায়ের করা হয়নি। মৌখিক অভিযোগের ভিত্তিতে ঘটনাস্থলে জিআরপি পাঠিয়ে তল্লাশি চালানো হচ্ছে।