Asianet News BanglaAsianet News Bangla

প্রবল বৃষ্টির জেরে বধের আগে মাঠে দাঁড়িয়ে ভিজছে রাবণ, কোথাও ত্রিপলে মোড়া অবস্থায় পড়ে ময়দানে

বৃষ্টির জেরে জঙ্গলমহলের চাঁদড়া ও গুড়গুড়িপাল এলাকায় রাবণ বধের অনুষ্ঠান মাঝ পথেই বন্ধ রাখতে হয়েছে। বেলিয়াতে রাবণের মূর্তিতে আগুন লাগানোর কিছুক্ষণ আগেই বৃষ্টি হওয়ায় সব স্থগিত হয়ে যায়।

Dussehra celebration has been postponed due to heavy rains in West Medinipur bmm
Author
Kolkata, First Published Oct 17, 2021, 6:57 PM IST
  • Facebook
  • Twitter
  • Whatsapp

শনিবার দুপুর থেকেই নিম্নচাপের (Depression) জেরে পশ্চিম মেদিনীপুর (West Medinipur) জুড়ে বিক্ষিপ্ত বৃষ্টি (scattered rain) শুরু হয়েছে। আর এই বৃষ্টির ফলে লক্ষ্মী পুজোর (Laxmi Puja) আগে সমস্যায় পড়েছেন বহু মানুষ। একে দুর্গাপুজো (Durga Puja) শেষ হয়ে যাওয়ার জন্য এখন আকাশে বাতাসে বিষাদের সুর ভাসছে। তার উপর আবার বৃষ্টি হওয়ায় ফের লক্ষ্মী পুজোর আগে চিন্তার ভাঁজ পড়েছে সাধারণ মানুষের কপালে।   

বৃষ্টির (Rain) জেরে জঙ্গলমহলের চাঁদড়া ও গুড়গুড়িপাল এলাকায় রাবণ বধের (Dussehra celebration) অনুষ্ঠান মাঝ পথেই বন্ধ রাখতে হয়েছে। বেলিয়াতে রাবণের মূর্তিতে আগুন (Fire) লাগানোর কিছুক্ষণ আগেই বৃষ্টি হওয়ায় সব স্থগিত হয়ে যায়। দু'দিন ধরেই সেই রাবণের মূর্তি দাঁড়িয়ে ভিজছে। অন্যদিকে সদর ব্লকের গুড়গুড়িপাল এলাকাতে শেষমুহূর্তে বড় ত্রিপলে মুড়ে ফেলে রাখতে হয়েছে মাঠেই ৷ রাবণ বধ উপলক্ষে আয়োজিত মেলাও স্থগিত অনির্দিষ্ট সময়ের জন্য। 

Dussehra celebration has been postponed due to heavy rains in West Medinipur bmm

আরও পড়ুন- মিলেছে সময়, মঙ্গলবার সাংসদ পদ থেকে ইস্তফা দেবেন বাবুল সুপ্রিয়

প্রতিবছরের মতো এবছরও নিয়ম করে মেদিনীপুর সদর ব্লকের জঙ্গলমহলে রাবণ বধ অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়েছিল। সদর ব্লকের এনায়েতপুর, গুড়গুড়িপাল ও বেলিয়া এই তিনটি স্থানে দশেরা পালনের রীতি দীর্ঘদিন ধরে হয়ে আসছে। এই উপলক্ষ্যে মেলার আয়োজনও হয়ে থাকে জঙ্গলমহলের এই তিন স্থানেই। সেই মতো গত শুক্রবার সন্ধ্যেয় এনায়েতপুর এলাকাতে দশেরা পালন করা হয়। কিন্তু, পরদিন থেকে প্রতিকূল আবহাওয়া হওয়ার কারণে শেষ মুহূর্তে রাবণ বধের অনুষ্ঠান বন্ধ করতে হয়েছে গুড়গুড়িপাল ও বেলিয়া এলাকায়। 

আরও পড়ুন- লক্ষাধিক টাকার কাফ সিরাপ ও সর্ষের তেল পাচার হচ্ছিল বাংলাদেশে, গ্রেফতার ৫

বেলিয়া এলাকার বাসিন্দা রবীন মাহাত বলেন, "দহনের আগে রাবণ মূর্তিকে দাঁড় করানো হয়েছিল। বাজিও তৈরি ছিল। কিন্তু, বৃষ্টি শুরু হয়ে যাওয়ার কারণে তা বন্ধ করে পালাতে হয়েছে। দু'দিন ধরেই সেই মূর্তি ফাঁকা মাঠে দাঁড়িয়ে ভিজছে। মেলাও বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে।" 

আরও পড়ুন- নবান্নের নির্দেশ, সৌন্দর্যায়নের জন্য ১০ কোটি টাকার আলোকসজ্জা মুর্শিদাবাদে

গুড়গুড়িপাল এলাকায় শেষ মুহূর্তে বিশাল রাবণের মূর্তি দাঁড় করানো না হলেও মাঠেই তা ত্রিপল দিয়ে ঢেকে রাখা হয়েছে। মেলাও বন্ধ রয়েছে। স্থানীয় বাসিন্দারা জানিয়েছেন, জঙ্গলমহলের মানুষের দীর্ঘ অপেক্ষার উৎসব এটি। সেটিও প্রতিকূল আবহাওয়ার কারণে বন্ধ করা হল। আবহাওয়া কবে পরিষ্কার হবে তার কোনও ঠিক নেই। অন্যদিকে, মেদিনীপুর শহর ছাড়াও বৃষ্টির জেরে বিভিন্ন স্থানে প্রতিমা নিরঞ্জনের ক্ষেত্রেও শনিবার সমস্যা দেখা দিয়েছিল। 

Follow Us:
Download App:
  • android
  • ios