Asianet News BanglaAsianet News Bangla

জঙ্গলে টেনে নিয়ে গেল বাঘ, সুন্দরবনে মৎসজীবীর মৃত্যু

  • কাঁকড়া ধরতে গেলে জঙ্গলে টেনে নিয়ে যায় বাঘ
  • বন দফতরের তৎপরতায় উদ্ধার মৎসজীবীর দেহ
  • রায়মঙ্গল নদীতে কাঁকড়া ধরতে গিয়ে বিপত্তি
  • বেঙ্গল টাইগারের সঙ্গে মৎসজীবীর ধস্তাধস্তি
     
Fisherman killed in tiger attack at Sundarban ASB
Author
Kolkata, First Published Sep 4, 2020, 7:07 PM IST
  • Facebook
  • Twitter
  • Whatsapp

সুন্দরবনে কাঁকড়া ধরতে গিয়ে বাঘ হামলায় মৃত্যু হল  এক মৎসজীবীর। শুক্রবার সকালে মাছ ধরতে গিয়ে বাঘ তাঁর উপর অতর্কিত হামলা চালায়। বাঘের সঙ্গে কিছুক্ষণ ধস্তাধস্তির পর ওই মৎসজীবীকে জঙ্গলে টেনে নিয়ে যায় বাঘটি।  বসিরহাটের হেমনগর কোস্টাল থানা এলাকার  কুমারিগ্রামের ঘটনা।

জানাগেছে হিঙ্গলগঞ্জ পানঘুনটি গ্রামের বাসিন্দা বছর পঁয়ত্রিশের মণিরুল গাজি শুক্রবার সকালে সুন্দরবনে মাছ ধরতে দিয়েছিল। রায়মঙ্গল নদী হয়ে সুন্দরবনের কুমিরমারি জঙ্গলে ঢোকে সে। সেখানেই ওত পেতে শিকারের জন্য বসেছিল রয়্যাল বেঙ্গল টাইগার। মণিরুলের উপর অতর্কিত হামলা চালায় বাঘটি। নিজেকে বাঁচাতে বাঘের সঙ্গে কিছুক্ষণ লড়াই করে সে। কিন্তু বাঘের হামলায় মৃত্যু হয় মণিরুলের। তাঁকে জঙ্গলে টেনে নিয়ে যায় বাঘটি।

গ্রামবাসীদের দাবি, মণিরুলের সঙ্গে আরও বেশ কয়েকজন মৎসজীবী গিয়ে ছিলেন কাঁকড়া ধরতে। গ্রামে ফিরে বাঘের হামলার বিষয়টি জানালে আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে এলাকায়। 

হেমনগর কোস্টাল থানার পুলিশ আধিকারিক মলয় মণ্ডলের নেতৃত্বে বনদফতরের কর্মীরা সহ মণিরুলের খোঁজে জঙ্গলে যায়। কুমিরমারি জঙ্গলের ভিতর থেকে মণিরুলের দেহ উদ্ধার করা হয়। দেহ ময়নাতদন্তের বসিরহাট জেলা হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

যদিও, সুন্দরবনের কুমারিমারি জঙ্গল এলাকায় কাঁকড়া বা মাছ ধরায় নিষেধাজ্ঞা জারি রেখেছে বন দফতর। ওই মৎসজীবীদের অনুমতি ছিল কিনা খতিয়ে দেখা হচ্ছে।   
 

Follow Us:
Download App:
  • android
  • ios