দ্বৈপায়ন লালা, মালদহ: প্রবল বৃষ্টিতে গঙ্গায় নদী ভাঙনের জেরে প্রবল আতঙ্কের সৃষ্টি হয়েছে মালদহে। কালিয়াচক তিন নম্বর ব্লকের বিস্তীর্ণ এলাকায় নদীর পাড় ধসের আতঙ্ক চেহারা নিয়েছে। নিজেদের ঘরবাড়ি ছেড়ে নিরাপদে আশ্রয় নিয়েছেন গ্রামবাসীরা।

প্রশাসন সূত্রে খবর, কালিয়াচক তিন নম্বর ব্লকের চিনাবাজার গ্রামের প্রায় ৩০০ মিটার এলাকা নদীগর্ভে প্রবেশ করেছে। ক্রমাগত নদী ভাঙনের জেরে আতঙ্কের সৃষ্টি হয়েছে এলাকায়। এদিন সকাল ৯টা থেকে ভাঙন শুরু হয়। নদী তিরবর্তী এলাকার গাছপালা হুড়মুড়িয়ে নদীর জলে ঢুকে যায়। পাশাপাশি, চিনাবাজার এলাকার গঙ্গা তিরবর্তী প্রায় ৭০ মিটার জুড়ে নদী পাড়ে ধস নামে। ফরাক্কা ব্যারাজ থেকে জল ছাড়ার কারনে এই সমস্যা তৈরি হয়েছে। জলের তোড়ে ওই এলাকায় ধস নেমেছে। ব্য়ারাজ কর্তৃপক্ষকে কম ছাড়ার অনুরোধ করেছেন জেলাশাসক।

নদীর পাড়ে ধস নামতে থাকায় আতঙ্কিত হয়ে পড়েন এলাকার বাসিন্দারা। নিরাপদ আশ্রয়ের খোঁজে গ্রামের ঘরবাড়ি ছেড়ে অন্যত্র আশ্রয় নিয়েছেন তাঁরা। 

কালিয়াচক ৩ নম্বর ব্লকের বিডিও গৌতম দত্ত জানান, চিনাবাজার এলাকার প্রায় ৫০টি পরিবারকে অন্যত্র সরানোর ব্যবস্থ করা হয়েছে। ক্ষতিগ্রস্তদের জন্য ত্রাণের ব্যবস্থা করেছে প্রশাসন। দুর্গতদের জন্য বিপর্যয় মোকাবিলায় ইতিমধ্য়েই কিট বিলি করা হয়েছে। পরিবার পিছু চল্লিশ কেজি করে চাল, দুটি করে ত্রিপল এবং জলের পাউচ বিলি করা হয়েছে বলে জানালেন বিডিও।