সুপ্রিম কোর্টে ফের ধাক্কা খেলেন রাজীব কুমার। আগাম জামিনের আবেদন করার জন্য সু্প্রিম কোর্টের কাছে সাত দিন বাড়তি সময় চেয়ে আবেদন করেছিলেন কলকাতার প্রাক্তন নগরপাল। এ দিন সেই আবেদন খারিজ করে দিয়েছে সুপ্রিম কোর্ট। শীর্ষ আদালত জানিয়ে দিয়েছে, আগামী শুক্রবারের মধ্য রাজীবকে নিম্ন আদালতে আগাম জামিনের আবেদন করতেই হবে। তা না হলে আদালতের রায় অনুযায়ী তাঁর বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা নিতে পারবে সিবিআই।

গত শুক্রবার সারদা মামলায় সিবিআই-এর আবেদনে সাড়া দিয়ে সুপ্রিম কোর্ট জানিয়েছিল, রাজীবকে প্রয়োজনে হেফাজতে নিয়ে জেরা করতে পারবেন সিবিআই গোয়েন্দারা। তার জন্য গত ফেব্রুয়ারি মাসে রাজীবকে দেওয়া তাদের রক্ষাকবচ প্রত্যাহার করে নেয় শীর্ষ আদালত। কিন্তু একই সঙ্গে শীর্ষ আদালতের দুই বিচারপতি জানান, সাতদিনের মধ্যে উপযুক্ত আদালতে আগাম জামিনের আবেদন করতে পারবেন রাজীব। এই সাতদিনের মধ্যে তাঁকে গ্রেফতার করতে পারবে না সিবিআই। 

কিন্তু রাজ্যের সব আদালতে আইনজীবীদের কর্মবিরতি চলায় রাজীবের পক্ষে আদালতে আগাম জামিনের আবেদন করা সম্ভব হয়নি। তাই ফের সুপ্রিম কোর্টে গিয়ে আগাম জামিনের আবেদন করার সময়সীমা আরও সাতদিন বাড়ানোর অনুরোধ করেন রাজীব কুমারের আইনজীবীরা।  সময়সীমা বাড়ানোর জন্য় তিন বিচারপতিকে নিয়ে বেঞ্চ গঠনের আর্জি জানানো হয়েছিল রাজীব কুমারের তরফে। সেই আবেদনই খারিজ করে দিয়েছে শীর্ষ আদালত।

এর অর্থ, যদি রাজ্যে আইনজীবীদের কর্মবিরতি না ওঠে এবং শুক্রবারের মধ্যে রাজীব কুমার আগাম জামিনের আবেদন না করতে পারেন, তাহলে বড়সড় বিপাকে পড়তে পারেন রাজীব। কারণ সুপ্রিম কোর্টের দেওয়া সাতদিনের সময়সীমা শুক্রবারই শেষ হচ্ছে। তার পরে রাজীবকে নিজেদের হেফাজতে নিতে আর কোনও বাধা থাকবে না সিবিআই-এর।