পুজোর আনন্দের মাঝেই মর্মান্তিক দুর্ঘটনায় মৃত্যু হল দুই শিশুর। ঠাকুর দেখতে বেরিয়ে বাড়ি ভেঙে মৃত্যু হল ষষ্ঠ শ্রেণির দুই ছাত্রীর। মর্মান্তিক এই দুর্ঘটনাটি ঘটেছে মুর্শিদাবাদ জেলার কান্দির গোকর্ণ এলাকায়। 

স্থানীয় সূত্রে খবর, বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় গ্রামেরই কয়েকটি শিশু ঠাকুর দেখতে বেরিয়েছিল। গ্রামে নিজেদের পাড়ার ঠাকুর দেখার ফাঁকেই একটি মাটির পরিত্যক্ত বাড়ির সামনে খেলছিল তারা। আচমকাই মাটি এবং টিনের সেই বাড়িটি ওই শিশুদের উপরে হুড়মুড়িয়ে ভেঙে পড়ে। টিন এবং মাটির ঢিবির নীচে চাপা পড়ে রক্তাক্ত অবস্থায় মৃত্যু হয় আশা বাগদি ও মীনা বাগদি নামে দুই শিশুর। ছ' বছরের আশা এবং মীনা দু' জনেই ষষ্ঠ শ্রেণির পড়ুয়া। তাদের সঙ্গে আরও দুই শিশু আহত হয়। তাদের নাম শুভশ্রী বাগদি এবং রাধা বাগদি।  

আহত শিশুদের উদ্ধার করে প্রথমে গোকর্ণ গ্রামীণ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। কিন্তু আহত শিশুদের অবস্থা সঙ্কটজনক হওয়ায় পরে তাদের মুর্শিদাবাদ মেডিক্যাল কলেজে স্থানান্তরিত করা হয়। 

স্থানীয়রা জানিয়েছেন, টানা কয়েকদিনের বৃষ্টিতে পরিত্যক্ত ওই বাড়িটির দেওয়াল দুর্বল হয়ে পড়েছিল। এ দিন ওই শিশুরা খেলা করার সময় আচমকাই বাড়িটি ভেঙে পড়ে। গোটা ঘটনায় এলাকায় শোকের ছায়া নেমে এসেছে। ম্লান হয়ে গিয়েছে পুজোর আনন্দ।