দক্ষিণবঙ্গের জন্য স্বস্তির নয়, বরং খারাপ খবরই শোনাল আলিপুর আবহাওয়া দফতর। আগামী বাহাত্তর ঘণ্টায় দক্ষিণবঙ্গের জেলাগুলিতে তাপমাত্রা বাড়বে, সঙ্গে বাড়বে আর্দ্রতাজনিত অস্বস্তিও। এমনকী পশ্চিমাঞ্চলের জেলাগুলিতে কোথাও কোথাও তাপমাত্রা চল্লিশ ডিগ্রি ছুঁতে পারে বলেও সতর্ক করেছে হাওয়া অফিস।

ফণী দু্র্যোগ কাটার পরে থেকেই গত দু' দিনে বেড়েছে গরমের দাপট। আবহবিদরা জানিয়েছেন, বাতাসে জলীয় বাষ্পের পরিমাণ একেবারেই কমে যাওয়ায় এই পরিস্থিতি তৈরি হচ্ছে। আপাতত দক্ষিণবঙ্গে ঝড়বৃষ্টির পূর্বাভাস নেই। তবে উত্তরবঙ্গের পাঁচ জেলার জন্য বৃষ্টির পূর্বাভাস দিয়েছেন আবহবিদরা।

মঙ্গলবার আলিপুর আবহাওয়া দফতরের দেওয়া পূর্বাভাস অনুযায়ী, আগামী বাহাত্তর ঘণ্টায় দক্ষিণবঙ্গের সব জেলাতেই সর্বোচ্চ এবং সর্বনিম্ন তাপমাত্রা স্বাভাবিকের থেকে দুই থেকে তিন ডিগ্রি বেশি থাকবে। বাঁকুড়া, পুরুলিয়া, ঝাড়গ্রাম, পশ্চিম বর্ধমানের জেলাগুলিতে তাপমাত্রা চল্লিশ ডিগ্রিও ছুঁতে পারে। তবে এখনই লু বওয়ার সম্ভাবনা নেই বলেই জানাচ্ছেন আবহবিদরা।

এই পরিস্থিতিতে শরীর সুস্থ রাখতে চিকিত্সকরা বেশি করে জল এবং হাল্কা খাবার খাওয়ার পরামর্শ দিচ্ছেন। বিশেষত শিশু এবং বয়স্কদের দুপুরের পর চড়া রোদে না বেরনোরই পরামর্শ দিচ্ছেন তাঁরা। সম্ভব হলে নুন, চিনির জল করে খেতে পারলে ভাল। রোদ থেকে বাঁচতে অবশ্যই ছাতা, সানগ্লাস ব্যবহার করতে বলা হচ্ছে। তবে রাস্তায় বেরিয়ে কাটা ফল, রঙিন সরবতর মতো অস্বাস্থ্যকর পানীয় খেতে নিষেধ করছেন চিকিত্সকরা।