বৃহস্পতিবার চাঁদের হাট বসল শহর কলকাতার রয়্যাল বেঙ্গলে। নুসরতের রিসেপশন উপলক্ষ্যে সেজে উঠল পাঁচ তারা হোটেল। জুই ফুলের গন্ধে ভরে উঠল আসর। সন্ধে নামতেই একের পর এক তারকার সমাবেশে ভরে উঠল হোটেল চত্বর। বাদ পরলেন না শহরের নেতা-মন্ত্রীরাও। 

রাত যত বাড়ল ততই বাড়তে থাকল অতিথির সমাগম। সকলেরই শুভেচ্ছাবার্তায় একটাই সুর, সুখের হোক নবদম্পতী বৈবাহিক জীবন। নতুন নতুন আউট ফিটে টলি-তারকারা যেমন নজর কাড়লেন এক দিকে, তেমনই অন্যদিকে নেতামন্ত্রীদের উপস্থিতিও ছিল এই দিন নজরে পরার মতন। কারুর হাতে ফুলের বোকে, কারুর হাতে উপহার। 

অনুষ্ঠানে যথামসয় পৌঁচ্ছে গিয়েছিলেন নুলরত জাহানের মা-বাবা। এছাড়াও নিমন্ত্রণ রক্ষা করতে এদিন রয়্যালে উপস্থিত হয়েছিলেন সস্ত্রীক অভিনেতা আবির চট্টোপাধ্যায়, গায়ক সুরকার অনুপম রায়, মন্ত্রী মদন মিত্র, মন্ত্রী সুজিত বসু, তুনশ্রী চক্রবর্তী, সস্ত্রীক গায়ক রূপম ইসলাম, অভিনেত্রী সুদীপা চক্রবর্তী, ঋদ্ধিমা ও গৌরব চক্রবর্তী, সপুত্রক প্রসেনজিৎ চট্টোপাধ্যায়, জিৎ, প্রিয়াঙ্কা সরকার, ঋতাভরী চক্রবর্তী, সস্ত্রীক রাজা চন্দ্র, মডেল উষশী রায়, অভিনেতা রজতাভ দত্ত, সপরিবারে বিরসা-বিদিপ্তা প্রমুখেরা। 

বিয়ের আসরে নুসরতের সঙ্গে দেখা হয়নি অনেকেরই। নবদম্পতিকে তাই রিসেপশনেই প্রথমবারের মতন আশির্বাদ করতে হাজির হয়েছিলেন সকলে। চোখ ধাঁধাঁনো আয়োজন, পরিবেশনা, উপস্থাপনায় প্রসংশায় পঞ্চমুখ সকলেই।