রিল থেকে রিয়েল।  অভিনেতা বনি ও কৌশানির সম্পর্কের কথা সকলেই জানেন। দুজনেই চুটিয়ে প্রেম করছেন। তাদের খুল্লামখুল্লা প্রেম নিয়ে  সবসময়েই আলোচনার শীর্ষে রয়েছেন এই জুটি। প্রেমের বন্ধন দৃঢ় হলেও রাজনীতির ময়দানে দুইজন দুই মেরু। একুশের বিধানসভা নির্বাচনে তৃণমূলে যোগ দিয়েছেন কৌশানি মুখার্জি। এবং বিরোধী পক্ষ পদ্ম শিবিরে যোগ দিয়ে একপ্রকার সকলকে চমকে দিয়েছিলেন বনি সেনগুপ্ত।

 

 

২১-এর ভোটযুদ্ধ শুরু হয়ে গিয়েছে বঙ্গে। দলের প্রার্থীদের জন্য বিধানসভা নির্বাচনে জোরকদমে চলছে শেষ মুহূর্তের ভোটের প্রচার। তারকারাও সামিল হয়েছেন ভোট প্রচারে। আজ তৃতীয় দফার নির্বাচন। ভোটের উত্তপ্ত পরিস্থিতিতে বেঁফাস মন্তব্য করে তুমুল বির্তকে জড়িয়েছেন তৃণমূল প্রার্থী কৌশানী মুখার্জি।  এবার TMC-BJP ভুলে প্রেমিকার পাশে দাঁড়ালেন বনি সেনগুপ্ত।  প্রথমসারির সংবাদমাধ্যমকে কৌশানিকে সমর্থন করে বনি জানিয়েছেন, 'একটা দল বিরোধি শিবিরের দুর্বলতা খুঁজবে নিশ্চয় কিন্তু যেভাবে কৌশানির ভিডিও এডিট করেছে বিজেপি, সেটা একদমই ঠিক নয়। এটা ঠিক মানায় না বিজেপিকে। এটাকে কোনওভাবেই সমর্থন করা যায় না'। 

 


কৃষ্ণনগর উত্তর কেন্দ্রের তৃণমূল প্রার্থী কৌশানী মুখার্জি  ভোটের প্রচারে বেরিয়েছিলেন। সেখানেই মন্তব্য করে বিতর্কে জড়িয়েছেন কৌশানি। প্রচারে বেরিয়ে কৌশানি বলেন,  'এদিকে আয়, এদিকে আয়, তোদের বাবা‌ বিজিপে,  ঘরে সবার কিন্তু মা-বোন আছে, ভোটটা ভেবে দিবি'। তারকা প্রার্থীর এই মন্তব্যেই বিতর্কের পারদ চড়চড়িয়ে বাড়ছে। বিজেপি -এর পেজ থেকেই ইতিমধ্যেই সোশ্যাল মিডিয়ায় ভিডিওটি ছড়িয়ে পড়েছে।

 

বিজেপির হেভিওয়েট প্রার্থী মুকুল রায়ের বিরোধী পক্ষ হিসেবে ভোটে দাঁড়িয়েছেন কৌশানি। তবে ভোটের আগে কৌশানির এই ভিডিওকে কেন্দ্র করে উত্তাল রাজনীতি। বিরোধী পক্ষ এই ভিডিওকে সামনে রেখেই আক্রমণ করছেন শাসকদলকে। বিজেপির অভিযোগ, প্রচারে বেরিয়ে আমজনতাকে ভয় দেখিয়ে শাসানি দিচ্ছেন তৃণমূল তারকা প্রার্থী। যদিও কৌশানি নিজের জায়গায় অনড়। তারকা প্রার্থী কৌশানি জানাচ্ছেন তার মন্তব্যকে ভুল ব্যাখা করা হচ্ছে। এমনকী তিনি আরও বলেছেন, বিজেপি শাসিত বিহার, উত্তরপ্রদেশে যেভাবে মেয়েদের উপর নির্যাতন করা হয়, তা দেখেই এই মন্তব্য। ভোটযুদ্ধের মধ্যে নয়া বিতর্কে জড়িয়ে কৌশানি বলেন, 'পুরো মন্তব্যের খানিকটা অংশ কেটে নিয়ে অপপ্রচার চালাছে বিজেপি। এটা পুরোপুরি পদ্ম শিবিরের চক্রান্ত। পুরো ভিডিওটি না দেখিয়ে, কিছুটা অংশ কেটে নিয়ে তা ভাইরাল করেছে পদ্মশিবির। , পুরো ভিডিয়োটি যাতে তাঁরা প্রকাশ করেন আমি আমার টিমকে বলব। সাধারণ মানুষ যাতে সবটা দেখতে পান, এবং নিজেরাই তার বিচার করেন।'‌ তারপর নিজের বক্তব্যের সমর্থনে ভিডিওর প্রমাণও দেন অভিনেত্রী।