১৯ বছরের দলিত তরুণীকে গণধর্ষনের খবরে আরও একবার তোলপাড় গোটা দেশ। উত্তর প্রদেশের এই নির্মম ঘটনা সামনে উঠে আসতেই নেট দুনিয়ায় সরব হলেন সাংসদ নুসরত জাহান। বর্তমানে তরুণীকে ভর্তি করা হয়েছে আলিগড় মেডিক্যাল কলেজে। আইসিইউ-তে রেখে চলছে পরীক্ষা-নিরীক্ষা। ইতিমধ্যেই পুলিশের কাছে নিজের বয়ান রেকর্ড করেছেন তরুণী। গত ১৪ সেপ্টেম্বর তাঁকে ৪ উচ্চবৃত্ত পরিবার থেকে আসা যুবক গণধর্ষণ করে। 

এই নির্মম ঘটনাই এবার নজরে এলো সাংসদ নুসরত জাহানের। সোশ্যাল মিডিয়ায় পোস্ট করে তিনি এবার কড়া ভাষায় তোপ দাগলেন গেরুয়া শিবিরে। উত্তর প্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী যোগী আদিত্য নাথকে উল্লেখ করে নুসরত বলেন, আর কতদিন এভাবে দলিত তরুণীদের নির্যাতিত হতে হবে! কেন এই বিজেপি সরকার মেয়েদের বিরুদ্ধে, কেনই বা দলিতদের বিরুদ্ধে! নুসরতের কথায় যোগীর রাজ্যের মহিলাদের পরিস্থিতি এক কথায় অকল্পপনীয়।  

 

 

পরিবারের বয়ান অনুযায়ী, পুরোনো শত্রুতার জেরে এক ব্যক্তি তাঁদের মেয়েকে খুন করার চেষ্টা চালায়। বিস্তারিত বিবরণ পেয়ে পুলিশ তাঁকে বর্তমানে আটক করেছে। বৃহস্পতিবার নির্যাতিতার বয়ান পেয়ে সেই কেসে যুক্ত হয়েছে ধর্ষণের মামলাও। এই বিষয় সাফ উত্তর চেয়ে এবার বিস্ফোরক বয়ান নুসরতের। সরাসরি যোগী সরকারের দিকে আঙুল তুললেন তিনি। সেই রাজ্যের মহিলা ও দলিতদের পরিস্থিতিও তুলে ধরে এদিন সোশ্যাল মিডিয়ায় পোস্ট করেন তৃণমূল সাংসদ।