'এসওএস কলকাতা' ছবিতে কেমন লুকে দেখা যাবে নুসরত জাহানকে। অভিনেত্রীকে এই প্রশ্ন প্রায়সই করে চলেছে ভক্তরা। কেমন লুকে দেখা যাবে তাঁকে। একই প্রশ্ন করছে তাঁরা। অবশেষে সেই অপেক্ষার অবসান ঘটিয়ে ছবি পোস্ট করেছেন নুসরত। ক্রপ টপ এবং পালাৎজো পরে ফোটোশ্যুটের জন্য পোজ দিয়েছেন নুসরত। তবে তাঁর এই লুকের ইউএসপি হল ট্যাটু এবং হেয়ারস্টাইল। বব কাট কার্লি চুল এবং পেটে ও বুকে ট্যাটু নজর কেড়েছে সকলের। ইতিমধ্যেই প্রশংসায় পঞ্চমুখ ভক্তমহল। প্রসঙ্গত, ফের শুরু হয়েছে যশ দাশগুপ্ত এবং নুসরত জাহানের 'এসওএস কলকাতা'র শ্যুটিং। অভিনেতা এবং অভিনেত্রীর ভক্তরা এ বিষয় বেশ উৎসাহী। লকডাউনের মাঝে সমস্ত নিয়ামবলী মেনেই চলছে শ্যুট। সেটে কলাকুশলী ছিল কম। 

আরও পড়ুনঃ'মম-টু-বি' কে দিলেন নিজের গোটা সময়, রবিবারের দুপুরে রাজশ্রীর প্রেমালাপ

সেট থেকে নানা বি ভিডিও এখন দ্রুতগতিতে ভাইরাল হয়ে চলেছে নেটদুনিয়ায়। মিমি চক্রবর্তী এই ছবিতে থাকছেন ক্যামিওর চরিত্রে। নুসরত জাহান, যশ দাশগুপ্ত এবং মিমি এই প্রথম একটি ছবিতে একসঙ্গে কাজ করবেন। করোনা আতঙ্কে লকডাউনে কাটছে তিলোত্তমার দিনরাত। এরই মধ্যে বন্ধ ছিল বিনোদন জগতের সমস্ত শ্যুটিং এবং কাজ। সম্প্রতি নানা সতর্কতা মাথায় রেখেই শুরু হয়েছে শ্যুটিং। ধারাবাহিকের শ্যুটিং শুরু হলেও এতদিন বন্ধ ছিল সিনেমার শ্যুটিং। এই প্রথম করোনা প্রকোপের মাঝেই শুরু হয় ছবির শ্যুটিং। এসওএস কলকাতা। পরিচালক অংশুমান প্রত্যূষের আগামী ছবি। ছবিতে প্রধান ভূমিকায় থাকছেন যশ দাশগুপ্ত, নুসরত জাহান এবং মিমি চক্রবর্তী। সরকার দ্বারা প্রযোজ্য সমস্ত নিয়মাবলী মেনেই চলছে শ্যুটিং। ছবির চিত্রনাট্য অনুযায়ী, এই রোমাঞ্চকর গল্পটি বোনা হয়েছে জঙ্গিদের বিরুদ্ধে। সম্প্রতি মুক্তি পেয়েছে ছবির ফার্স্ট লুক। 

আরও পড়ুনঃ'সুশান্তকে খুন করে এখন মিথ্যে সমবেদনা', আবেগে ভরা রিয়ার ভাইয়ের পোস্ট, পেল 'খুনি'র তকমা

 

পোস্টারে দেখা গিয়েছে যশ বন্দুক হাতে দাঁড়িয়ে রয়েছেন। পাশে জড়িয়ে ধরে আছেন একটি বাচ্চা মেয়েকে। আগামী পুজোতেই মুক্তি পেতে চলেছে এসওএস কলকাতা। তবে মুক্তির দিন এখনও ঘোষণা করা হয়নি। যশের সঙ্গে মিমি এবং নুসরত দু'জনেই ভিন্ন ছবিতে অভিনয় করেছেন। পোস্টার দেখে ভক্তদের মধ্যে উত্তেজনা তুঙ্গে। এতদিন কোনও বিগ বাজেট ছবির ঘোষণা না মেয়ে যেন মর্চে ধরেছিল সিনেপ্রেমীদের মনে। অবশেষে স্বস্তির নিঃশ্বাস ফেললেন তাঁরা। এ বছর পুজোর জন্য অধীর আগ্রবে বসে তারা। ছবির প্লট ইতিমধ্যেই সারা ফেলে দিয়েছে বিনোদন জগতে। শুভেচ্ছা জানিয়ে চলেছে ভক্তরা। সম্প্রতি মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ঘোষণা করেছেন, আউটডোর শ্যুটিংয়ে নেই কোনও আপত্তি। তবে ফাঁকা জায়গায় চল্লিশ জন লোক নিয়ে করতে হবে শ্যুটিং।