কলকাতার রাস্তায় রাতের অন্ধকারে হেনস্তার শিকার হয়েছেন অভিনেত্রী সাংসদ মিমি চক্রবর্তী। জিম থেকে ক্লান্ত হয়ে বাড়ি ফিরছিলেন মিমি। সেখানে গড়িয়াহাট এলাকার কাছে এক ট্যাক্সি তাঁর গাড়ির পাশে এসে দাঁড়ায়। গাড়িতে বসে থাকা ট্যাক্সি চালক মিমির দিকে তাকিয়ে অশালীন অঙ্গভঙ্গি করতে থাকে। মিমি তারকা বলে এসব এড়িয়ে বেরিয়ে যাওয়ার মানুষ নন। গাড়ি থেকে থেকে সেই ট্যাক্সি চালককে হিড়হিড় করে টানতে টানতে নিয়ে যান থানায়। 

আরও পড়ুনঃসনিকা চৌহান মৃত্যু মামলায় বিক্রমের বিরুদ্ধে চার্জ গঠন, নিজেকে নির্দোষ বলে দাবি অভিনেতার

অভিযোগ দায়ের করে গ্রেফতারও করান সেই হেনস্তাকারীকে। মিমির উচিত শিক্ষায় এখন কয়েকদিন তার রাত কাটবে জেলের চার দেওয়ার মাঝেই। ইতিমধ্যেই জামিনের আবেদন খারিজ হয়েছে সেই ট্যাক্সি চালকের। আরও পাঁচদিন তাকে থাকতে হবে জেলেই। ২০ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত হেফাজতেই থাকবে সেই ব্যক্তি। ঘটনাটি ঘটে ১৪ সেপ্টেম্বর রাতে। মিমির এই পদক্ষেপে হেনস্তাকারী যে উচিত শিক্ষা পেয়েছে তাই নয়। মহিলাদের সাহসও জুগিয়েছেন মিমি। 

আরও পড়ুনঃগাঁজা সেবন করছেন রিয়া এবং সুশান্ত, ঠাট্টা চলছে ভিডিওতে, চাঞ্চল্য নেটদুনিয়ায়

আরও পড়ুনঃ'মা হতে চলেছেন কৌশানি', নেটদুনিয়ায় ভাইরাল 'বেবি বাম্প', ছবিতে বাড়ল জল্পনা

মহিলার সম্মান না করতে জানলে এমনই যে ঘটবে সেটাই স্বাভাবিক। প্রসঙ্গত, মিমির মহালয়া নিয়ে ভক্তমহলে উন্মাদনা তুঙ্গে। তাঁকে এবার স্টার জলসার মহালয়ায় দেখা যাবে দেবী রূপে। যার প্রোমো দু'সপ্তাহ ধরে রীতিমত ছড়িয়ে পড়েছে নেটদুনিয়ার আনাচে কানাচে। তাঁকে এমন রূপে দেখে মুগ্ধ দর্শকমহল। মহালয়ার আর মাত্র পাঁচদিন। তারপরই অপেক্ষার অবসান। মিমি টিভির পর্দায় ভেসে উঠবেন দেবীরূপে।