খবরটা এতক্ষণে সকলেই পেয়ে গিয়েছেন। তবে এখনও তাঁর অগণিত ভক্তরা বা বলিউডের কেউই তা বিশ্বাস করে উঠতে পারছেন না। রবিবার সকালে মুম্বইয়ের বান্দ্রায় নিজের বাড়িতেই বলিউড অভিনেতা সুশান্ত সিং রাজপুতকে মৃত অবস্থায় পাওয়া গিয়েছে। তাঁর ঝুলন্ত দেহ আবিষ্কার করেন এক পরিচারক। কেন মাত্র ৩৪ বছর বয়সে চলে গেলেন এই প্রতিভাবান অভিনেতা? প্রাথমিক তদন্তে পুলিশ এই ঘটনাকে আত্মহত্যা বলেই মনে করছে, তবে কিছুটা রহস্যও তৈরি হয়েছে।

বান্দ্রার পুলিশ জানিয়েছে, অভিনেতাকে দেহ তাঁর বাড়ি থেকে ঝুলন্ত অবস্থাতেই উদ্ধার করা হয়। তাঁর এক পরিচারক পুলিশকে খবর দিয়েছিলেন। তারপরই ঘটনাস্থলে ছুটে এসেছিল বান্দ্রা পুলিশের একটি তদন্তকারী দল। তাঁরা প্রাথমিক তদন্ত করেছেন। তবে তাঁর বাড়িতে কোনও সুইসাইড নোট পাওয়া যায়নি। মিলেছে কিছু মেডিকেল রিপোর্ট। সেগুলি কি বিষয়ক তা এখনই পুলিশ জানাতে চায়নি। এই বিষয়ে বিশদে তদন্ত চলছে। সুশান্ত সিং কী ধরনের ওষুধ খেতেন তা জানার চেষ্টা করছে পুলিশ।

ঘটনার সময় বান্দ্রায় সুশান্তের ওই বাড়িতে তিন জন চাকর উপস্থিত ছিল। তাঁরাও কিছু জানতে পারল না কেন, সেইসবও খতিয়ে দেখা হচ্ছে। দেহের মনাতদন্ত করা হবে। তার রিপোর্ট পেলে পুরো বিষয়টা পরিষ্কার হবে। সুইসাইড নোট না পাওয়ায় এখনই পুলিশ নিশ্চিতভাবে আত্মহত্যার কথা বলতে চাইছে না। তবে যদি ময়নাতদন্তের রিপোর্টেও আত্মহত্য়াই প্রমাণিত হয়। তবে কেন তিনি এই পথ বেছে নিলেন তা রহস্যই থেকে যাবে। তবে সুশান্ত সিং রাজপুতের সাম্প্রতিক সোশ্য়াল মিডিয়া পোস্ট দেখে অনেকেই মনে করছেন, কিশোর বয়সে হারানো মায়ের শূন্যতা তাঁর জীবনে বড় হয়ে উঠেছিল।