পত্রলেখা বসু চন্দ্র, বর্ধমান-রাস্তা আটকে ছবি তোলাকে কেন্দ্র করে উত্তপ্ত পরিস্থিতি তৈরি হল বর্ধমানের চিৎপুরে। ওই এলাকায় রাস্তার উপর বাইক রেখে ছবি তুলছিল কয়েকজন যুবক-যুবতী। রাস্তার আটকে রাখার প্রতিবাদ করায় যুবকরা এক জন সবজি বিক্রেতাকে বেধড়ক মারধর করে বলে অভিযোগ। এরপরই পরিস্থিতি উত্তপ্ত হয়ে ওঠে।

জানাগেছে, এদিন সকালে বর্ধমানের চিৎপুর এলাকায় কয়েকজন যুবক-যুবতী রাস্তার উপর ছবি তুলছিল। রাস্তার উপর বাইক রেখে ছবি তুলছিল বলে অভিযোগ। সেইসময় একজন গ্রামবাসী সবজি বিক্রেতা রাস্তা থেকে তাঁদের বাইক সরাতে বলে। এরপরই ওই সবজি বিক্রেতার উপর চড়াও হয় যুবক-যুবতীরা। তাঁকে বেধড়ক মারধর করা হয় বলে অভিযোগ। বিষয়টি স্থানীয় বাসিন্দাদের চোখে পড়লে পরিস্থিতি উত্তপ্ত হয়ে ওঠে। অভিযুক্ত যুবক-যুবতীদের ধরে স্থানীয় একটি ক্লাব ঘরে আটকে রাখে। পুলিশকে খবর দেয়।

স্থানীয় বাসিন্দাদের দাবি, একসঙ্গে ৫ জন যুবক-যুবতী ছিলেন। তাঁদের মধ্য়ে ছিলেন একজন মাঝবয়সি মহিলাও। বিপদ বুঝে তাঁদের মধ্য়ে দুই যুবক-যুবতী বাইকে করে পালিয়ে যায়। পলাতকদের ধরতে ওই তিনজনকে আটকে রাখেন গ্রামবাসীরা। যে দুজন পালিয়ে গিয়েছে তাদের ফিরানোর দাবি জানায় তারা। এলাকায় ব্য়াপক উত্তেজনা দেখা দেয়। ঘটনাস্থলে পৌঁছায় বর্ধমান থানার বিশাল পুলিশ বাহিনী। গ্রামবাসীদের অভিযোগের ভিত্তিতে ওই তিনজনকে থানায় তুলে নিয়ে যায় পুলিশ।