Asianet News Bangla

বিবাহ-বর্হিভূত সম্পর্কের জের, ছুটিতে গ্রামে এসে খুন যুবক

 

  • বিবাহ-বর্হিভূত সম্পর্কের নির্মম পরিণতি
  • গ্রামে বাড়িতে এসে খুন হয়ে গেলেন যুবক
  • ঘটনায় চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে বর্ধমানের মন্তেশ্বরে
  • এক মহিলাকে আটক করেছে পুলিশ 
     
Youth murdered for extra marital affairs in Burdwan
Author
Kolkata, First Published Feb 6, 2020, 7:38 PM IST
  • Facebook
  • Twitter
  • Whatsapp

বিবাহ-বর্হিভূত সম্পর্কের নির্মম পরিণতি। গ্রামের বাড়িতে ছুটি কাটাতে এসে খুন হয়ে গেলেন এক ব্যক্তি! বাড়ির কাছেই মিলল গলায় ফাঁস লাগানো মৃতদেহ। ঘটনায় চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে পূর্ব বর্ধমানের মন্তেশ্বরে। আটক করা হয়েছে এক মহিলাকে।

মৃতের নাম সিটু খান। বাড়ি, মন্তেশ্বরের মিরপুর গ্রামে। একটি বেসরকারি সংস্থার চাকরি করতেন সিটু, কর্মসূত্রে থাকতেন দিল্লিতে। বাড়ি তৈরি করার জন্য মাস তিনেক আগে তিনি গ্রামে ফিরেছিলেন বলে জানা গিয়েছে। বৃহস্পতিবার সকালে বাড়ির থেকে কিছু দুরে সিটুর মৃতদেহ পড়ে থাকতে দেখেন স্থানীয় বাসিন্দারা। প্রত্যক্ষদর্শীরা জানিয়েছেন, অন্য একটি বাড়ির পিছনে গলায় ওড়নার ফাঁস লাগানো অবস্থায় দেহটি পড়েছিল। ঘটনাটি জানাজানি হতেই শোরগোল পড়ে যায় এলাকায়। খবর দেওয়া হয় মন্তেশ্বর থানায়। মৃতদেহটি উদ্ধার করে ময়নাতদন্তে পাঠিয়েছে পুলিশ।

আরও পড়ুন: স্বামীকে গ্রাস করেছে অলসতা, প্রতিবাদে খুন হলেন স্ত্রী

কিন্তু কেন খুন হয়ে গেলেন সিটু খান? ঘটনার জন্য বিবাহ-বর্হিভূত সম্পর্ককে দায়ী করেছেন গ্রামবাসীরা। তাঁদের বক্তব্য, সানু বিবি নামে গ্রামেরই বিবাহিত মহিলার সঙ্গে সম্পর্ক ছিল সিটুর। বস্তুত, স্বামীর বিবাহ-বর্হিভূত সম্পর্কের কথা স্বীকার করে নিয়েছেন সিটু খানের স্ত্রী মর্জিনা বিবিও। মৃতের স্ত্রীর দাবি, দিন কয়েক আগে সিটুর কাছ থেকে কয়েক লক্ষ টাকা ধার নিয়েছিলেন সানু বিবি। সেই টাকা ফেরানোর নাম করে বাড়ি থেকে ডেকে নিয়ে গিয়ে খুনের অভিযোগ করেছেন তিনি।  অভিযুক্ত সানু বিবি-কে আটক করে জিজ্ঞাসাবাদ করছে পুলিশ।

Follow Us:
Download App:
  • android
  • ios