লকডাউনের মধ্যেও নয়া ধামাকা নিয়ে হাজির জিও। গ্রাহকদের কথা মাথায় রেখেই ভিডিও কনফারেন্স অ্যাপ জিও মিট নিয়ে হাজির জিও।  অফিস মিটিং থেকে বিজনেস ডিল সবেতেই জনপ্রিয় হয়ে উঠেছিল জুম অ্যাপ। কিন্তু ভারত সরকার টিকটক সহ ৫৯ টি চিনা অ্যাপ বন্ধের নির্দেশ দিয়েছে। বিশেষত নিরাপত্তার স্বার্থেই বন্ধ করা হয়েছে জুম অ্যাপ। বর্তমান লকডাউনে গ্রাহকদের যাতে কোনও অসুবিধার পড়তে না হয় সেই কারণেই জিও-র এই অভিনব উদ্যোগ। এর ফলে সাধারণ মানুষেরও সুবিধা হবে।

আরও পড়ুন-৯০ দিনের আগেই ধামাকাদার ১২টি মেগা ডিল, নয়া রেকর্ড গড়ল মুকেশ আম্বানির 'জিও'...

একের পর এক বিজনেস ডিল করেই চলেছে রিলায়েন্স ইন্ডাস্ট্রি। সম্প্রতি করোনা রুখতে লকডাউন শুরু হয়েছে। আর লকডাউনে আনলক ২পর্ব চলেছে। সেখানও জিও ম্যাজিক সকলকে চমক দেখাচ্ছে। মহাসঙ্কটের সময় যখন অন্যান্য সংস্থা কঠিন সময়ের মধ্য দিয়ে যাচ্ছে তখন সবাইকে চমকে দিয়ে গোটা বিশ্ববাজারে উঠে আসছে রিলায়েন্স জিও-র নাম। এই জিও মিট অ্যাপে একসঙ্গে ১০০ জন মানুষ যোগ দিতে পারবেন। জিওর হাত ধরেই ডিজিটাল দুনিয়াতে পা রাখল ভারত।

আরও পড়ুন-বন্দিদশায় ডিপ্রেশনে ভুগছে না তো আপনার সন্তান, বুঝবেন কীভাবে...

এই প্রথম দেশীয় ভিডিও কনফারেন্স অ্যাপ নিয়ে এল জিও।  এই অ্যাপের সাহায্যে যে কোনও মিটিং  সহজেই করা যাবে। যে কোনও জায়গা থেকেই একসঙ্গে বহু মানুষ যোগ দিতে পারবেন। একসঙ্গে এত মানুষ যোগদান করলে অফিসের মিটিং-এও অনেক সুবিধা পাওয়া যাবে। এর আগেও লকডাউনে ওয়ার্ক ফ্রম হোমে একাধিক সস্তার প্ল্যান নিয়ে হাজির হয়েছিল জিও। তবে এই প্রথমবার দেশিয় সংস্থা রিলায়েন্স জিওর এই ভিডিও কনফারেন্স অ্যাপ মানুষদের অনেকটাই সুবিধা দেবে। ইতিমধ্যেই মাত্র তিন মাসেরও কম সময়ের মধ্যে ১২-তম বার লগ্নি হয়েছে জিওর।  এত কম সময়ের মধ্যে ১২টি বিদেশি লগ্নি টেনে একের পর এক ধামাকাদার রেকর্ড গড়েছে জিও।