Asianet News BanglaAsianet News Bangla

-সোমবার থেকে সোনায় বিনিয়োগের মহাসুযোগ, চালু হল সপ্তম দফার সোভারেন গোল্ড বন্ড বিক্রি

-২৫ থেকে ২৯ অক্টোবর পর্যান্ত চলবে গোল্ড বন্ড বিক্রির প্রক্রিয়া চলতি আর্থিক বছরে অর্থাৎ ২০২২ সালের মার্চ মাস পর্যন্ত মোট চার দফায় বিক্রি হবে সোভারেন গোল্ড বন্ড

Sovereign Gold Bond seven scheme to open on Monday
Author
Kolkata, First Published Oct 25, 2021, 1:55 PM IST
  • Facebook
  • Twitter
  • Whatsapp

আট থেকে আশি, সোনার গয়না (Gold jewellery) পছন্দের ক্ষেত্রে মহিলাদের কাছে বয়স একটা সংখ্যামাত্র। বিয়ের মরশুম বা উৎসবের মরশুমে (Festive season)গয়না কেনার একটা চাহিদা কম বেশি সকল মহিলাদেরই থাকে। কিন্তু এক-এক সময় সোনা এতটাই অগ্নিমূল্য (Price hike)হয়ে যায় যে দাম শুনে রীতিমতো ছ্যাঁকা খাওয়ার উপক্রম হয়। তবে উৎসবের মরশুমে (Festive season) অর্থাৎ দীপাবলি ও ধনতেরসের আগেই আসছে সোনায় বিনিয়োগের (Investment in Gold) মহা-সুযোগ। ২৫ অক্টোবর সোমবার (Monday)থেকেই শুরু হয়েছে সপ্তম দফার (7th tranch) সোভারেন গোল্ড বন্ড ( Sovereign Gold Bond) বা স্বর্ণ ঋণপত্র বিক্রি। কেন্দ্রীয় অর্থ মন্ত্রক (Union Ministry of Finance) বিজ্ঞপ্তি দিয়ে জানিয়েছে, এই দফায় বন্ড পাওয়া যাবে ২৫ থেকে ২৯ অক্টোবর। চলতি আর্থিক বছরে(Financial year) অর্থাৎ ২০২২ সালের মার্চ মাস পর্যন্ত মোট চার দফায় বিক্রি হবে সোভারেন গোল্ড বন্ড( Sovereign Gold Bond) ।

 

অর্থমন্ত্রকের তরফে আরও জানান হয়েছে, যে স্বর্ণ বন্ড বিক্রি হবে তাতে প্রতি গ্রাম সোনার দাম পড়বে ৪,৭৬৫ টাকা। অর্থাৎ প্রতি দশ গ্রাম সোনা কেনার জন্য দিতে হবে ৪৭,৬৫০ টাকা। কেউ যদি ডিজিটাল লেনদেনের( Digital payment) মাধ্যমে বন্ড কিনলে মিলবে বিশেষ ছাড়। সেক্ষেত্রে প্রতি গ্রামে ছাড় পাওয়া যাবে ৫০ টাকা।অর্থাৎ ১ গ্রাম সোনার জন্য ৪,৭১৫ টাকা এবং ১০ গ্রামের জন্য ৪৭,১৫০ টাকা। সুদ মিলবে বছরে ২.৫ শতাংশ। কেন্দ্রের (Central Government)- এর নিয়ম অনুযায়ী একজন ব্যক্তি একটি অর্থবর্ষে (Financial year) সর্বোচ্চ ৪ কেজি পর্যন্ত সোনা কিনতে পারেন। তবে কোনও ট্রাস্ট(Trust) বা ওই ধরনের সংস্থা একটি আর্থিক বছরে সর্বোচ্চ ২০ কেজি সোনার বন্ড কিনতে পারে। বলা বাহুল্য মেয়াদ শেষে বন্ড ভাঙানোর ক্ষেত্রে মূলধনী লাভকরে ছাড় রয়েছে। মেয়াদের আগে তা বিক্রি করলে দিতে হবে মূলধনী লাভকর। সোনা বন্ড গচ্ছিত রেখে ঋণ নেওয়ারও সুযোগ রয়েছে।

ক্ষমতায় আসার পর প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী (PM Modi)এই বন্ড চালুর কথা ঘোষণা করেছিলেন। ২০১৫ সালের বাজেট বক্তৃতায় সোভারেন গোল্ড বন্ড (Sovereign Gold Bond) বাজারে আনার কথা জানিয়েছিলেন তৎকালীন কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী প্রয়াত অরুণ জেটলি (Arun Jaitley)। সেই বছরের নভেম্বরে চালু হয় বন্ড এবং এটি কেনার ক্ষেত্রে ডিজিটাল লেনদেনে জোর দিচ্ছে কেন্দ্র। এই বন্ড বিক্রি হয় ব্যাঙ্ক(Bank) ও নির্দিষ্ট কিছু ডাকঘরে(Post office)। বলা বাহুল্য, ভারতে (India) ইতিমধ্যেই সোনা কেনার এই পদ্ধতি সাধারণ মানুষের কাছে জনপ্রিয় হয়েছে।

Follow Us:
Download App:
  • android
  • ios