রেশন কার্ড এর গুরুত্ব সবথেকে বেশি টের পাওয়া যাচ্ছে এই লকডাউনে। এবার ডিজিটাল রেশন কার্ডের সঙ্গে আধার কার্ড, মোবাইল নম্বর সংযুক্ত করা বাধ্যতামূলক। কিন্তু লকডাউনের মধ্যে মূল্যবান রেশন কার্ড নিয়ে অনেকেই সমস্যায় পড়েছেন। একদিকে উৎসবের মরশুম, অন্যদিকে যদি এই সময়ে বাড়তি কিছু টাকা-পয়সা পাওয়া যায়, তাহলে এর চেয়ে ভাল আর কী হতে পারে। এবার রেশন কার্ড নিয়ে বড় ঘোষণা করল তামিলনাড়ু সরকার। 

 

 

করোনার আবহের মধ্যে এই ঘোষণায় বড়সড় স্বস্তি সাধারণ মানুষের।  পোঙ্গাল উৎসবের আগেই তামিলনাড়ুর মুখ্যমন্ত্রী এডাপাড্ডি কে পালানিস্বামী রেশনকার্ডধারীদের জন্য নগদ টাকা দেওয়ার কথা ঘোষণা করেন। ১৪ জানুয়ারি রয়েছে পোঙ্গাল উৎসব। পালানিস্বামী জানিয়েছেন, পোঙ্গাল প্যাকেজ থেকে প্রায় ২৬ মিলিয়ন রেশন কার্ডধারীরা উপকৃত হবেন। 

 

 

গত বছর রাজ্য সরকার সাধারণ মানুষকে ১০০০ টাকা করে দিয়েছিল। এখন তা বাড়িয়ে ১৫০০ টাকা করা হয়েছে। শুধু তাই নয়, রাজ্য সরকার রেশন কার্ডধারীদের সস্তায় চিনি কেনার জন্য বৈধ করে দিয়েছে। অন্যদিকে রেশন কার্ডধারীরা ২৫০০ টাকা নগদ এবং এক কেজি চাল, চিনি এবং একটি আঁখ বিনামূল্যে দেওয়া হবে। সামনেই তামিলনাডুতে নির্বাচন। নির্বাচনের আগেই পালানিস্বামীর এই উপহার পেয়ে সকলেই খুশি।