বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ, সাংসদ সুকান্ত মজুমদার ও রাজ্য় সম্পাদক সায়ন্তন বসু সহ ২৬ জন বিজেপি নেতৃত্বের বিরুদ্ধে বিপর্যয় মোকাবিলা আইন ভঙ্গ করার মামলা রুজু করল রায়গঞ্জ পুলিশ।  করোনা আবহে দেশজুড়ে রাজনৈতিক সভা সমাবেশ এবং জমায়েত কর্মসূচি বাতিল ঘোষণা করেছে সরকার। সেই সরকারি নির্দেশকে অমান্য করে সোমবার উত্তর দিনাজপুর জেলার হেমতাবাদে প্রয়াত বিজেপি বিধায়কের স্মরণসভা ও মূর্তি স্থাপনের ভিত্তিপ্রস্তর অনুষ্ঠানের নামে বিশাল জমায়েত করে বিজেপির শীর্ষ নেতৃত্ব। 

সামাজিক দূরত্ব বিধি লঙ্ঘন করে বিপর্যয় মোকাবিলা আইন ভঙ্গ করার অভিযোগ উঠেছে বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ সহ বিজেপির শীর্ষ নেতাদের বিরুদ্ধে। এরই বিরুদ্ধে মামলা করেছে রায়গঞ্জ পুলিশ জেলার পুলিশ। রায়গঞ্জ পুলিশ জেলার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার অনুপম সিং জানিয়েছেন,  ডিজাস্টার ম্যানেজমেন্ট অ্যাক্ট অনুযায়ী দিলীপ ঘোষ সহ ২৬ জনের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করা হয়েছে।

গত ১৩ জুলাই মৃত্যু হয়েছিল হেমতাবাদের বিজেপি বিধায়ক দেবেন্দ্র নাথ রায়ের।  প্রায় একমাস পর গতকাল সোমবার হেমতাবাদের প্র‍য়াত বিজেপি বিধায়ক দেবেন্দ্র নাথ রায়ের স্মরণসভার আয়োজন করে বিজেপি। হেমতাবাদের বালিয়ামোড় বাজার এলাকায় প্রয়াত বিধায়কের মূর্তি স্থাপনের ভিত্তিপ্রস্তর অনুষ্ঠান ও কয়লাডাঙি এলাকায় স্মরণ সভার আয়োজন করে হাজার হাজার বিজেপি কর্মী সমর্থকদের জমায়েত করে বিজেপি নেতৃত্ব।  

কেন্দ্র ও রাজ্য সরকারের করোনা মোকাবিলায় সামাজিক দূরত্ব বিধি ও বিপর্যয় মোকাবিলা আইনকে লঙ্ঘন করে এই জমায়েত করার জন্য বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ,  বিজেপির রাজ্য সাধারণ সম্পাদক সায়ন্তন বসু,  বিজেপির বালুরঘাটের সাংসদ সুকান্ত মজুমদার এবং বিজেপির জেলা সভাপতি বিশ্বজিৎ লাহিড়ী সহ ২৬ জন বিজেপি নেতৃত্বের বিরুদ্ধে ডিজাস্টার ম্যানেজমেন্ট অ্যাক্ট অনুযায়ী মামলা দায়ের করা হয়েছে বলে জানিয়েছেন রায়গঞ্জ পুলিশ জেলার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার অনুপম সিং। তিনি এও বলেন, কেন্দ্র ও রাজ্য সরকার লকডাউন পিরিয়ডে যেকোনও রাজনৈতিক কর্মসূচি বাতিল করেছে। কিন্তু বিজেপি সেই নির্দেশকে অমান্য করে সোমবার হেমতাবাদে রাজনৈতিক কর্মসূচি ও জমায়েত করায় তাদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যাবস্থা নেওয়ার উদ্যোগ গ্রহণ করা হয়েছে।