বিশ্বজুড়ে করোনার মারণ থাবা। কোভিড ১৯ রোগের  বিরুদ্ধে লড়াইয়ে উন্নত দেশগুলির চিকিৎসা ব্যবস্থা প্রায় ভেঙে পড়েছে। ভারতেও দিনে দিনে বাড়ছে প্রোকপ। এই পরিস্থিতিতে এই মারণ ভাইরাস মোকাবিলায় চাই প্রচুর অর্থ। কোথা থেকে আসবে সেই যোগান তা নিয়ে ভেবে হিমশিম খাচ্ছে কেন্দ্র। এর মধ্যেই  মোদী সরকারের চিন্তা লাঘব করতে সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দিল এশিয়ান ডেভেলপমেন্ট ব্যাঙ্ক। মহামারী করোনার বিরুদ্ধে লড়াইয়ে ভারতকে ১৬ হাজার ৭০০ কোটি টাকা দেওয়ার আশ্বাস দিলেন এডিবির প্রেসিডেন্ট মাসাতসুগ আসেকাওয়া।

মহামারী করোনার  প্রভাবে  বিশ্বজুড়ে মন্দা দেখা দিয়েছে।  এই  অবস্থায় আর্থিক সংকটের মুখে পড়েছে  ভারত সরকারও। দেশে তিন সপ্তাহের লকডাউনে দিন আনি দিন খাই মানুষের উপার্জন বন্ধ হয়ে গিয়েছে। এই  কঠিন অবস্থায়  জাতীয় স্বাস্থ্য পরিষেবা ও আয়করের ক্ষেত্রে দেশবাসীকে স্বস্তি দিয়েছে সরকার। দিনমজুর ও শ্রমিকদের সহায়তায় অর্থনৈতিক প্যাকেজ ঘোষণা হয়েছে। তবে কঠিন লড়াই সবে শুরু হয়েছে। এই পরিস্থিতিতে দেশের অর্থমন্ত্রী নীর্মলা সীতারমণকে আর্থিক সাহায্যের বিষয়ে আশ্বস্ত করেছেন মাসাতসুগ আসেকাওয়া।

শিয়ান ডেভেলপমেন্ট ব্যাঙ্ক প্রেসিডেন্ট আসেকাওয়া বলেন, “জরুরি প্রয়োজনে ভারতকে সাহায্য করার প্রতিশ্রুতি দিচ্ছে এশিয়ান ডেভেলপমেন্ট ব্যাঙ্ক। দেশের অর্থনীতিকে চাঙ্গা করতে, দিন দরিদ্র, ক্ষুদ্র ও মাঝারী ব্যবসায়ী এবং স্বাস্থ্য খাতে সহায়তার জন্য জরুরি ভিত্তিতে ১৬, ৭০০ কোটি টাকার বন্দোবস্ত করা হচ্ছে। একই সঙ্গে বেসরকারি ক্ষেত্রে সহযোগিতার দিকটিও ভাবনা চিন্তা করে দেখা হচ্ছে।”

আসেকাওয়া আরও বলেন, “যদি প্রয়োজন পড়ে তো ভারতকে আরও সাহায্য করবে এশিয়ান ডেভেলপমেন্ট ব্যাংক। ভারতের প্রয়োজনে আমরা সমস্ত অর্থনৈতিক সুযোগ সুবিধার সহায়তা দেব।”

মৃত্যু মিছিলে হিমশিম নিউইয়র্ক, বিশ্বের অন্যতম আধুনিক শহরে এবার খোড়া হচ্ছে গণকবর
আরও ৫ জনের শরীরে মিলল মারণ ভাইরাস, এবার ৭ লক্ষ ধারাভিবাসীর করোনা পরীক্ষার পথে বিএমসি
লকডাউন ভেঙে রোড ট্রিপে ধনকুবের, ছুটিতে পাঠান হল মহারাষ্ট্রের স্বরাষ্ট্র দফতরের আমলাকে

এশিয়ান ডেভেলপমেন্ট ব্যাঙ্কের মতোই করোনা পরিস্থিতির মোকাবিলায় ভারতের পাশে দাঁড়িয়েছে বিশ্ব ব্যাঙ্কও। কয়েকদিন আগেই আপৎকালীন ভিত্তিতে ভারতে ১০০ কোটি টাকা অনুদানের কথা ঘোষণা করেছে বিশ্ব ব্যাঙ্ক।