করোনায় আক্রান্তের সংখ্য়া ক্রমশ বাড়ছে কলকাতা তথা রাজ্য়ে। এদিকেস করোনা সংক্রমণ ঠেকাতে সোমবার বিকেল ৫ টা থেকে রাজ্য় জুড়ে  শুরু হয়েছে লকডাউন। অনেকেই লকডাউনের আইন লঙ্ঘন করছেন। যার জেরে রাজ্য জুড়েই লাঠিধারী পুলিশের দাপট ৷ আর সেখানে অন্য এক ছবি দেখা গেল সোনারপুরে। সোনারপুরে পুলিশের গাড়িতেই কন্যা সন্তানের জন্ম দিলেন মা।

আরও পড়ুন, করোনায় মৃতের দেহ নিয়ে তুলকালাম, আড়াই ঘণ্টা ধরে জীবাণুমুক্ত করা হল শ্মশান


জানা গিয়েছে, টহল দেওয়ার সময় এক মহিলার প্রসব যন্ত্রনা হওয়ায় তাঁকে গাড়িতে তুলে হাসপাতালে নিয়ে গেল পুলিশ। যাওয়ার পথে পুলিশের গাড়িতেই এক কন্যা সন্তানের জন্ম দিলেন সোনারপুরের সুভাষগ্রামের বাসিন্দা। লকডাউন কার্যকর করার জন্য রাস্তায় ঘুরছিলেন সোনারপুর থানার আইসি সঞ্জীব চক্রবর্তী। রাস্তায় তিনি সুরেন্দ্রবাবুকে দাঁড়িয়ে থাকতে দেখে তাঁকে বাড়িতে ঢুকতে বলেন। বিশেষভাবে সক্ষম সুরেন্দ্রবাবু সোনারপুর থানার আইসিকে তিনি নিজের সমস্যার কথা খুলে বলেন। বিষয়টি জানতে পেরে নিজের গাড়িতেই জ্যোতিদেবীকে এবং  এলাকার দুই মহিলাকেও নিয়ে আসেন সুভাষগ্রাম হাসপাতালে। সুরেন্দ্র আসলে বিহারের বাসিন্দা ৷ বিগত দুই বছর ধরে তাঁরা রয়েছেন সোনারপুরে। ইতিমধ্য়েই চিকিৎসকরা তার চিকিৎসা শুরু করেছেন। আপাতত ভাল আছেন মা ও মেয়ে দুই জনেই।

আরও পড়ুন, লকডাউন লঙ্ঘনের শাস্তি, কলকাতায় গ্রেফতারের সংখ্য়া ১৩০০ ছাড়াল

উল্লেখ্য়,  কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য় মন্ত্রক থেকে ইতিমধ্য়েই রাজ্য় এবং সংস্থাকে আগাম করোনা ভাইরাস নিয়ে আগাম সতর্কতা নির্দেশ দিয়েছিল। স্টেডিয়াম, থিয়েটার, সিনেমা হল সহ সব জায়গাতেই কোনওরকম জমায়েতের বিরুদ্ধে নিষেধাজ্ঞা জারি করা হয়েছিল। এবার তা পুরোপুরি লকডাউন।  এই মুহূর্তে বিশ্বের প্রায় ১৪১ টি দেশে কামড় বসিয়েছে প্রাণঘাতী ভাইরাস করোনা। এক লক্ষ পচিশহাজারেরও বেশি মানুষ এই ভাইরাসে আক্রান্ত। চিনে মৃতের সংখ্যা সাড়ে তিনহাজার ছাড়িয়েছে। ভারতেও আক্রান্তের সংখ্যা ক্রমশ বেড়ে চলেছে। এদিকে রাজ্য়ে এই মুহূর্তে করোনা আক্রান্তের সংখ্য়া বেড়ে ৭ হয়েছে। এবং সোমবারই রাজ্য়ে প্রথম করোনা আক্রান্ত পৌঢ়ের মৃত্য়ু হয়েছে। তাই করোনা রুখতে তৎপর রাজ্য় সরকার। কিন্তু তারই মাঝে সোনারপুরে অন্য়ভাবে সাহায্য়ের হাত এগিয়ে দিল পুলিশ।

 

আরও পড়ুন, আপাত স্বস্তি রাজ্য়ে,৪৬ জনের লালারসে পাওয়া গেল না করোনা