তৃতীয় দিনের শুরুতে ধাক্কা খেলেও, অবশেষে শার্দুল ঠাকুর ও ওয়াশিংটন সুন্দরের অনবদ্য ব্যাটিংয়ে ব্রিসবেন টেস্টে লড়াইয়ে রইল ভারতীয় দল। ব্রিসবেন টেস্টে প্রথম ইনিংসে বড় রানের লিড পাওয়ার আশা করেছিল অস্ট্রেলিয়া। ভারতীয় ব্যাটিং লাইনের টপ অর্ডারে ভাঙন ধরিয়ে সেই আশা পবরণের দিকেই এগিয়ে যাচ্ছিল টিম পেইনের দল। কিন্তু  শার্দুল-সুন্দরের ইনিংসের সৌজন্যেই প্রথম ইনিংসে মাত্র ৩৩ রানের লিড পেল ব্যাগি গ্রিনরা। তৃতীয় দিনের শেষে ৫৪ রানে এগিয় অস্ট্রেলিয়া।

৬৬ রানে ২ উইকেট নিয়ে তৃতীয় দিনের খেলা শুরু করে ভারতীয় দল। কিন্তু সেট হয়েও একের পর এক ভারতীয় দলের প্রথম সারির ব্যাটসম্যান চেতশ্বর পুজারা, অজিঙ্কে রাহানে, মায়াঙ্ক আগরওয়াল, ঋষভ পন্থরা প্যাভেলিয়নে ফেরতে যান। ১৮৬ রানের মাথায় ৬ উইকেটে হারিয়ে চাপে পড়ে যায় ভারতীয় দল। ঠিক তখনও ভারতীয় দলের ত্রাতার ভূমিকায় অবতীর্ণ হন দুই টেলেন্ডার শার্দুল ঠাকুর ও ব্রিসবেন টেস্টে অভিষেক হওয়ায় ওয়াশিংটন সুন্দর। অজি পেস ব্যাটারিকে সামলে ধীরে ধীরে পার্টনারশিপ গড়েন শার্দুল-সুন্দর জুটি। 

অনবদ্য ব্যাটিং করে অর্ধশতরান করেন শার্দুল ও সুন্দর। ১২৩ রানের পার্টনারশিপ করে ভারতকে লড়াইয়ে জায়গায় রাখেন দুই তরুণ। ৩৩৬ রানে শেষে হয় ভারতের প্রথম ইনিংস। ৬৭ রান করেন শার্দুল ঠাকুর  ও ৬২ রান করেন ওয়াশিংটন সুন্দর। প্রথম ইনিংসে ৩৩ রানের লিড নিয়ে দ্বিতীয় ইনিংসে ব্যাট করতে নামে অস্ট্রেলায়া। দিনের শেষে ব্যাগি গ্রিনদের স্কোর বিনা উইকেটে ২১। অর্থাৎ ভারতের থেকে ৫৪ রানে এগিয়ে অস্ট্রেলিয়া। চতুর্থ দিনে দ্রুত অস্ট্রেলিয়াকে অল আউট করে ম্যাচের রাশ নিজেদের হাকে আনাই টার্গেট টিম ইন্ডিয়ার।