পিতৃত্বকালীন ছুটিতে অস্ট্রেলিয়া সফরের মাঝপথে দেশে ফিরেছিলেন বিরাট কোহলি। তারপর কন্যা সন্তানের বাবা হন ভারত অধিনায়ক। বেশ কিছু দিব ছুটি কাটিয়ে যোগ দিয়েছিলেন ভারতীয় দলে। ঘরের মাঠে টানা ৪টি টেস্ট, ৫টি ২০ ও ৩টি একদিনের ম্যাচ খেলেছেন বিরাট। মাঝে কয়েক দিনের গ্যাপ তারপরই শুরু হবে আইপিএল। ইতিমধ্যেই বিভিন্ন দলের তারকারা যোগ দিচ্ছেন তাদের ফ্র্যাঞ্চাইজি দলের সঙ্গে। খুব শীঘ্রই বিরাটও যোগ দেবেন আরসিবিতে।

আইপিএল শুরুর আগে সব তারকারা কিছুটা বিশ্রাম বা বিন্দাস মুডে কাটালেও, বিশ্রাম বলে কোনও শব্দ এই মুহূর্তে নেই বিরাট কোহলির অভিধানে। রবিবার ভারত-ইংল্যান্ড সিরিজ শেষ হওয়ার পর সোমবার থেকেই ফিটনেস ট্রেনিং শুরু করে দিলেন রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স ব্যাঙ্গালোর অধিনায়ক।  সোশ্যাল মিডিয়ায় বিরাট নিজেই ফিটনেস ট্রেনিংয়ের ভিডিও পোস্ট করেন। টুইটারে পোস্ট করা শরীরচর্চার ভিডিওর ক্যাপশনে কোহলি লেখেন, ‘কোনও রেস্ট ডে নেই। এখান থেকে সবকিছুই এখন গতিশীল।’

 

 

দেশ হোক আর আইপিএল মাঠে যে নিজের একশো শতাংশ সেরাটা দেওয়ার চেষ্টা করেন বিরাট কোহলি, সেবিষয়ে কোনও সন্দেহ নেই। আর এবারের আপিএল তার কাছ প্রেস্টিজ ফাইাট। ১৩ মরসুম আরসিবির হয়ে খেললেও, দলকে একবারও চ্যাম্পিয়ন করতে পারেননি বিরাট। যা নিয়ে সমালোচনা কম হয়নি। এবার আরসিবি দলেও হয়েছে একাধিক পরিবর্তন। তাই যুদ্ধে নামার আগে সেনাপতি বিশ্রাম না নেওয়াটাই স্বাভাবিক। বিরাটের এখন পাখির চোখ আইপিএল চ্যাম্পিয়ন।