নতুন বছরের শুরুতেই বাবা হতে চলেছেন ভারতীয় ক্রিকেট দলের অধিনায়ক বিরাট কোহলি। আগে থেকে আবেদন করায় বিসিসিআই মঞ্জুর করেছে তার পিতৃত্বকালীন ছুটিও। তাই আসন্ন অস্ট্রেলিয়া সফরে ওডিওৃআই ও টি২০ সিরিজ খেললেও,টেস্ট সিরিজের প্রথম ম্যাচ খেলেই দেশে ফিরে আসবেন বিরাট কোহলি।ভারতীয় অধিনায়কের এই সিদ্ধান্তকে যেমন স্বাগত জানিয়েছেন অনেকেই, আবার দেশের দায়িত্ব থেকে ছুটি নেওয়ায় সমালোচনার মুখেও পড়তে হয়েছে কোহলিকে। এবার অস্ট্রেলিয়া সফরের মাঝপথে বিরাট কোহলির দেশে ফিরে আসা নিয়ে এবার মুখ খুললেন কপিল দেব। পরিস্কার জানিয়ে দিলেন তাদের সময় এমনটা ভাবাও যেত না।

যদিও সরাসরি বিরাট কোহলিকে কিছু বলেননি ৮৩-০ বিশ্বকাপ জয়ী অধিনায়ক। তবে বিষয়টি নিয়ে যে তিনি সুর চড়িয়েছেন তা পরিস্কার কপিল দেবের কথায়। তিনি জানিয়েছেন,'আমাদের কালে এমনটা সম্ভব হত বলে মনে হয় না। একবার নিয়ে আবার ফেরত আসতাম, নিশ্চিতভাবে এমন সুযোগ পাওয়া যেত না। সুনীল গাভাসকর যেমন কয়েক মাস ছেলের মুখই দেখতে পায়নি। তবে তখন পরিস্থিতি অন্যরকম ছিল। সময় বদলে যায়। কোহলির উদাহরণ দিয়েই বলি। বাবা হারানোর পরের দিনই তো মাঠে নেমেছিল। এবার ও সন্তান আসার দায়িত্ব পালনে ছুটি নিচ্ছে। সম্ভব হলে নিতেই পারে।' একই সঙ্গে কোহলির এইভাবে ছুটি নেওয়াকে প্রকারন্তরে বিলাসিতাও বলেছেন তিনি।

এখানেই থেমে থাকেননি কপিল দেব। তিনি আরও বলেছেন,'এখন ইচ্ছে হলে কোনও খেলোয়াড় নিজে বিমান কিনেও যাতায়াত করতে পারে। ভাবলে ভালই লাগে যে ক্রীড়াবিদরা এখন এতটা উচ্চতায় পৌঁছে গিয়েছে।'কপিল জানান এখন চাইলে তিন দিনের মধ্যে যাতায়াত করা যেত কিন্তু তা না করে এত গুরুত্বপূর্ণ সফরের তিনটি টেস্ট থেকেই সরে দাঁড়িয়েছেন কোহলি।' যদিও এর কারণে বিরাটের ক্রিকেটের প্রতি ভালোবাসা কমে গিয়েছে ববলে ভাবার কোনও কারণ নেই বলেও জানিয়েছেন কপিল দেব। একইসঙ্গে বাবা হওয়ার জন্য বিরাটকে আগাম শুভেচ্ছাও জানিয়েছেন কিংবদন্তী প্লেয়ার।