নিউজিল্যান্ডের বিরুদ্ধে ওয়ান ডে-র সিরিজের শেষ ম্যাচেও হারতে হলো ভারতকে। সিরিজ হাতছাড়া হয়েছিল আগেই। মঙ্গলবার ভারত মাউন্ট মঙ্গানুইতে নেমেছিল সম্মান রক্ষার জন্য। কিন্তু তাও করতে পারলো না ভারতীয় দল। 

প্রথমে ব্যাট করে দ্রুত দুই উইকেট হারায় ভারত। তার মধ্যে একটি উইকেট অধিনায়ক বিরাট কোহলির। এরপর পৃথ্বী শ-এর সঙ্গে মিলে শ্রেয়স আইয়ার পরিস্থিতি সামলানোর চেষ্টা করেন। কিন্তু এরপরই ব্যাক্তিগত ৪০ রানের মাথায় গ্র্যান্ডহোমের থ্রোয়ে রান আউট হন পৃথ্বী। ব্যাটিংয়ে সাবলীল দেখালেও ফিটনেস নিয়ে এখনো অনেক খাটতে হবে তাকে। এরপর রাহুল, আইয়ার এবং মণীশ পান্ডে মিলে ভারতের স্কোর নিয়ে যান ভদ্রস্থ জায়গায়। এইবারের নিউজিল্যান্ডের ট্যুরে ভয়ংকর সুন্দর ফর্মে রয়েছেন রাহুলের। প্রথম ওয়ান ডে তে সকলে দেখেছিল রাহুলের সংহার মূর্তি। পরিস্থিতি সুবিধাজনক থাকায় সেদিন নেমেই বড় শট খেলতে শুরু করেছিলেন রাহুল। মাত্র ৬৪ বল খেলে ৮৮ রান করেছিলেন। আজ তাড়াতাড়ি উইকেট পরে যাওয়ায় ধীরে সুস্থে দেখে শুনে খেলেন রাহুল। মঙ্গলবার করলেন শতরান। ১১৩ বল খেলে করলেন ১১২ রান। সঙ্গে যোগ্য সঙ্গত শ্রেয়স আইয়ার এবং মনীশ পান্ডের। শ্রেয়স করেন ৬২ এবং মনীশ করেন ৪২ রান। মোট ৭ উইকেট খুইয়ে ২৯৬ করে ভারত।

জবাবে ব্যাট করতে নেমে শুরুটা ঝড়ের মতো করেন মার্টিন গাপ্টিল। মাত্র ২৯ বলে অর্ধশতরান করেন তিনি। তিনি ৬৬ রানে আউট হয়ে ফিরলেও টিকে ছিলেন আরেক ওপেনার হেনরি নিকলস। ১০৩ বলে ৮০ রানের সাবধানী ইনিংস খেলার পর তিনি আউট হন শার্দুল ঠাকুরের বলে। তারপর নিউজিল্যান্ড পর পর উইকেট হারানোয় ভারত যখন ভাবতে শুরু করে যে তারা ম্যাচে ফিরে এসেছে ঠিক তখনই কথা বলে ওঠে কলিন ডি গ্র্যান্ডহোমের ব্যাট। মাত্র ২৮ বলে ৫৮ রান করে প্রায় ৩ ওভার বাকি থাকতেই ম্যাচ শেষ করে দেন তিনি এবং লাথাম। ৫ উইকেটে ম্যাচ যেতে নিউজিল্যান্ড। লাথাম অপরাজিত থাকেন ৩২ রান করে। 

হারের পর ভারতীয় বোলিং এবং ফিল্ডিং কে দায়ী করেছেন অধিনায়ক কোহলি। আজকের ম্যাচে বোলাররা মুড়ি-মুড়কির মতো রান খরচা করেছেন। তাতেই বেজায় হতাশ কোহলি। গোটা ওয়ান ডে সিরিজে বোলিং ভুগিয়েছে ভারতকে। শেষ ওয়ান ডে তে শার্দুল ঠাকুর তার দশম ওভারটি শেষ করার আগেই ম্যাচ শেষ হয়ে যায়। ৯.১ ওভার বল করে তিনি দিয়েছেন ৮৭ রান। আর এক তরুণ বোলার নভদিপ সাইনি মাত্র ৮ ওভার বল করে খরচ করেছেন ৬৮ রান। সেই তুলনায় কৃপণ বোলিং করলেও সিরিজের বাকি দুটি ম্যাচের মতো এই ম্যাচেও উইকেট পাননি যশপ্রীত বুমরা। ভারতীয় বোলিং অ্যাটাকের সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ অস্ত্রের এরকম নিষ্ক্রিয় অবস্থা ভারতীয় দলকে টেস্ট সিরিজের আগে চিন্তায় রাখবে। আজকে একমাত্র নজরকাড়া বোলিং করেছেন চাহাল। ১০ ওভারে ৪৭ রান খরচ করে তিনি ৩ উইকেট নেন। কিন্তু তিনিও সিরিজে খুব ধারাবাহিক ছিলেন না। হতাশ ভারত অধিনায়ক হারের পর জানিয়েছেন এরকম বোলিং করে সিরিজ জয়ের আশা করাও উচিত না। টি টোয়েন্টি সিরিজে পিছিয়ে পরেও ওয়ান ডে তে অসাধারণ কামব্যাক করেছে নিউজিল্যান্ড। তাদের প্রশংসা করতেও ভোলেননি কোহলি।