শুরু হল ভোটগণণা। সকলেই জানেন, সপ্তদশ লোকসভা নির্বাচনে নির্ণায়ক কেন্দ্র হয়ে উঠবে উত্তর প্রদেশ। সেখানে মোট ৮০ টি কেন্দ্র রয়েছে। এ দিন ভোট গণনা শুরু হওয়ার পর থেকেই স্বাভাবিক ভাবেই গোটা দেশের নজর  তাই উত্তরপ্রদেশের দিকেই।

রাজনীতির বিশেষজ্ঞরা বলেছিলেন, এবার ভরাডুবি হবে বিজেপির।  কিন্তু গণনা শুরু হওয়ার পর থেকেই নস্যাৎ হচ্ছে যাবতীয় ভাবনা। শেষ পাওয়া খবরে, পোস্টাল ভোটে এখানে ৫০ টি কেন্দ্রে এগিয়ে রয়েছে বিজেপি। এসপি বিএসপি জোট এগিয়ে রয়েছে ১৭ টি কেন্দ্রে, কংগ্রেস এগিয়ে রয়েছে ৫টি কেন্দ্রে।

আমেঠিতে এগিয়ে রয়েছেন স্মৃতি ইরানি। আজমগড়ে এগিয়ে রয়েছেন অখিলেশ যাদব। রায়বেরিলিতে ভাল লড়াই দিচ্ছেন  কংগ্রেস সুপ্রিমো সোনিয়া গাঁধী। আমেঠিতে পিছিয়ে থাকলেও  রাহুল গাঁধী এগিয়ে রয়েছেন কেরালার ওয়ানারে।

প্রসঙ্গত উত্তরপ্রদেশে বিজেপির শক্তিক্ষয়ের কথা বারবার শোনা গিয়েছে। ধর্মীয় মেরুকরণ উত্তরপ্রদেশকে স্পষ্টতই দ্বিধাবিভক্ত। উত্তরপ্রদেশের তিনটি প্রান্তে এসপি-বিএসপি মহাজোটের শক্তি ইতিমধ্যেই পরীক্ষিত। এই জুটির মোট প্রাপ্ত ভোটের যোগফল বিজেপির থেকে বেশি হবে এমনটাই অনেকে আশা করেছেন। ইভিএম গণনার সময়টুকু সবুর করার পর এই আশা ফলদায়ী হয় কিনা সেটাই দেখার।