Asianet News BanglaAsianet News Bangla

ফিফার নির্বাসনের ফলে কী সমস্যা হবে ইস্টবেঙ্গল ও মোহনবাগানের, জেনে নিন বিস্তারিত

ভারতীয় ফুটবলের নিয়ামক সংস্থা সর্বভারতীয় ফুটবল ফেডারেশনকে (AIFF) নির্বাসিত (BAN)করল ফিফা (FIFA)। ‘তৃতীয় পক্ষের হস্তক্ষেপের’ কারণে এই শাস্তির কথা ঘোষণা করেছে ফিফা। এই ব্যানের জন্য কি কি সমস্যা হবে ইমামি ইস্টবেঙ্গল (Emami East Bengal) ও এটিকে মোহনবাগানের (ATK Mohun Bagan) ভারতের, জেনে নিন বিস্তারিত।

Emami East Bengal and ATK Mohun Bagan will face this problems after FIFA ban Indian Football spb
Author
First Published Aug 16, 2022, 2:22 PM IST

ফিফার নিয়ম অনুযায়ী কোনও দেশের ফুটবল নিয়ামক সংস্থায় তৃতীয় পক্ষের হস্তক্ষেপ করা যাবে না। ভারতীয় ফুটবল ফেডারেশনে সুপ্রিম কোর্টের গড়ে দেওয়া কমিটি কাজ চালানোর বিষয়টি মেনে নিতে পারেনি ফিফা। সেই কারণেই তৃতীয় পক্ষের হস্তক্ষেপের কারণে আন্তর্জাতিক ফুটবল থেকে ভারতকে নির্বাসিত করেছে ফিফা। এর ফলে ভরতীয় ফুটবল দল কোনও ধরনের আন্তর্জাতিক প্রতিযোগিতায় যেমন অংশ নিতে পারবে না। ঠিক তেমনই ভারতের মাটিতে অনুর্ধ্ব ১৭ মহিলা বিশ্বকাপও আয়োজন করা সম্ভব নয়। শুধু জাতীয় স্তরেই নয়  ঘরোয় ফুটবলেও বেশ  কিছু সমস্যার সম্মুখীন হতে হবে। বাংলার দুই প্রধান ইস্টবেঙ্গল ও মোহনাগানকেও সম্মুখীন হতে হবে নানা সমস্যার। তবে ঘরোয়া ফুটবল লিগ চালানোর বিষয়ে কোনও সমস্যা নেই।

ফিফার ব্যানের ফলে কী কী সমস্যা হবে ইস্টবেঙ্গল ও মোহনবাগানের-

আগামী ৭ সেপ্টেম্বর ঘরের মাঠে এএফসি কাপের ইন্টারজোনাল সেমিফাইনালে খেলার কথা মোহনবাগানের। কিন্তু নির্বাসন বহাল থাকলে সে ম্যাচে খেলতে পারবে না জুয়ান ফেরান্দোর দল। এর জন্য এইআইএফএফ-কে দায়ী করে   মোহনবাগান সচিব দেবাশিস দত্ত বলেন,'এর জন্য সম্পূর্ণ ভাবে দায়ী এআইএফএফ। তাদের দায়িত্বজ্ঞানহীনতার জন্যই মোহনবাগান খেলার সুযোগ হারাল। এআইএফএফ কর্তাদের ক্ষমতা ধরে রাখার কারণেই এই পরিস্থিতি তৈরি হল। ভারতীয় ফুটবলে এটা একটা অন্ধকার দিন।' তবে নির্বাসন উঠে গেলে এটিকে মোহনবাগানের খেলে নিয়ে কোনও সমস্যা থাকবে না।

এই নির্বাসনের ফলে ক্লাব স্তরেও নানা সমস্যার সম্মুখীন পড়তে হবে। ক্লাব ফুটবলে এই নির্বাসন ঘোষণা হওয়ার পর থেকে আর কোনও বিদেশী ফুটবলার সই করানো যাবে না। এমনকী যে বিদেশী ফুটবলাররা সই করেছেন কোনও ক্লাবে তারাও অন্যত্র যেতে পারবে না। 

গত শুক্রবার একসঙ্গে পাঁচ জন বিদেশিকে সই করিয়েছিল ইস্টবেঙ্গল। ? যতদিন না পর্যন্ত সাসপেনশন উঠছে, নতুন করে কোনও বিদেশি ফুটবলার সই করানো যাবে না। এর অর্থ, ইস্টবেঙ্গলের ষষ্ঠ বিদেশি ফুটবলার সই করানোর পরিকল্পনা আপাতত বিশ বাঁও জলে। 

ইস্টবেঙ্গলের, তিন বিদেশি ইভান গঞ্জালেজ, অ্যালেক্স লিমা ও ক্লেটন সিলভা আগে ভারতে খেলেছেন। তাই তাঁদের আন্তর্জাতিক ছাড়পত্র পেতে সমস্যা নেই। কিন্তু সমস্যা হচ্ছে নতুন দুই ফুটবলার কারালাম্বোস কিরিয়াকু ও এলিয়ান্দ্রোকে নিয়ে। তাঁরা ভারতে আগে খেলেননি। এই পরিস্থিতিতে তাঁরা আন্তর্জাতিক ছাড়পত্র পাবেন কি না তা নিশ্চিত নয়। সমস্যা হতে পারে এশিয়ান কোটার ফুটবলারকে সই করাতেও। মোহনবাগানের বিদেশীরা ভারতে চলে আসায় সেই সমস্যা নেই।

একটাই যা ভালো দিক ফিফার নির্বাসনের ফলে ঘরোয়া ফুটবল চালানোর বিষয়ে কোনো  সমস্যা হবে না। মঙ্গলবার থেকেই শুরু হচ্ছে ডুরান্ড কাপ। তাছাড়া আইলিগ ও আইএসএল করার ক্ষেত্রেও কোনও সমস্যা নেই। 

আরও পড়ুনঃনির্বাচনকে ভন্ডুল করতেই কি ফিফাকে কাজে লাগাল প্রফুল প্যাটেল গোষ্ঠী, জানুন নির্বাসনের কারণগুলি

আরও পড়ুনঃফের 'শূন্য থেকে শুরু', ফিফা ব্যানের ফলে কোন কোন সমস্যায় পড়তে হবে ভারতীয় ফুটবলকে, জানুন বিস্তারিত

Follow Us:
Download App:
  • android
  • ios