110

খড়দহ থেকে সোজা টলিগঞ্জ। টেলিভিশন দিয়ে অভিনয়ের শুরু। তারপর থেকেই একের পর এক এক্সপেরিমেন্ট করেই চলেছেন অভিনেত্রী সোহিনী সরকার (Sohini Sarkar)। বর্তমানে রীতিমতো দাপুটে অভিনেত্রীর তকমাও রয়েছেন।

Subscribe to get breaking news alerts

210

কেরিয়ারের জার্নিটা কেমন ছিল সোহিনীর (Sohini Sarkar)। অভিনয়ের এই যাত্রাপথ এতটাও সুগম ছিল না। প্রতিমুহূর্তে খারাপ পরিস্থিতির মুখে পড়েছিলেন নায়িকা।

310


সম্প্রতি প্রথম সারির সংবাদমাধ্যমে কাস্টিং কাউচ নিয়ে মুখ খুললেন সোহিনী সরকার (Sohini Sarkar)।  অভিনেত্রী জানিয়েছেন, কেরিয়ারের শুরুতেই পরিচালক-প্রযোজকদের লালসার শিকার হতে হতে বেঁচে গিয়েছিলেন নায়িকা। 

410

প্রথম সারির সংবাদমাধ্যমকে সোহিনী (Sohini Sarkar) জানান, তার জীবনটা পুরো রূপকথার মতো। গল্পের প্রথমে থাবা বসিয়েছিল রাক্ষস-খোক্কসদের দল। তারপর রাজপুত্র এসে সোনা-রূপোর কাঠি ছুঁইয়ে রাজকন্যাকে জীবন্ত করেছে।

510

অভিনেত্রী বলেন, এখন আর তার জীবনে কোনও রাক্ষস নেই। কারণ তাদের উপযুক্ত ব্যবস্থা করেছেন। নাম না নিয়ে সোহিনী (Sohini Sarkar) বলেন সিরিয়ালের শুরুতেই এক ব্যক্তি তাকে খারাপ ভাবে স্পর্শ করার চেষ্টা করত। কিন্তু ধারে কাছে ঘেষতে দেননি অভিনেত্রী।

610

সোহিনী জানান, একটা সময়ে সে সকলের সামনে আমায় প্রচন্ড বকাঝকা করছে আবার পরেই মেক-আপ রুমে সে  আমার কাছে আসার চেষ্টা করছে। কিন্তু সে তার জালে আমায় ফাঁসাতে পারেনি।

710

ঘটনাটি ২০০৫-২০০৬ সালে। তখন সোশ্যাল মিডিয়ার (Social Media) রমরমা ব্যাপারটা ছিল না। কিন্তু সেটের সহকর্মীরা প্রথম থেকেই সোহিনীর (Sohini Sarkar) পাশে ছিল বলে জানিয়েছেন অভিনেত্রী। যদি সময়ের সঙ্গে সঙ্গে তাদের আর দেখা মেলে না । যোগ্যতার অভাবেই সেইসমস্ত রাক্ষসরা আজ বিলুপ্ত।

810

বর্তমানে টলিপাড়ার অন্যতম জনপ্রিয় মুখ সোহিনী সরকার  (Sohini Sarkar)। রুপোলি পর্দা থেকে ওটিটি (OTT Platform) বেশ দক্ষতার সঙ্গেই অভিনয় করছেন অভিনেত্রী। প্রতিট প্ল্যাটফর্মে তার দক্ষতার ছাপ স্পষ্ট নজর কাড়ে সমালোচকদের।

910

রাখঢাক, লুকোছাপা এসব অতীত। কোনওদিন নিজেদের সম্পর্ককে লুকিয়ে রাখার চেষ্টা করেননি টলি অভিনেত্রী সোহিনী সরকার (Sohini Sarkar) এবং টলি তারকা রণজয় ( Ranojoy Bishnu)। সোশ্যাল মিডিয়ায় চোখ রাখলেই একাধিক সাহসী মুহূর্তে নজর কাড়েন টলিপাড়ার এই লাভবার্ডস। 

1010

পার্টি হোক কিংবা কোনও উৎসব সর্বদাই একসঙ্গে নজর কাড়েন রণজয়-সোহিনী। এই বছরের দুর্গাপুজোতেই কাপল গোল দিয়েছেন এই যুগল। ভালবাসা মাখানো সেই আদুরে ভিডিও সোশ্যাল মিডিয়ায় শেয়ার করেছেন রণজয়, লাভবার্ডসের আদুরেপনা দেখে হতবাক হয়েছেন নেটিজেনরা।