শ্লীলতাহানি-অন্তরঙ্গ মুহূর্তের ভিডিও ফাঁস, ৯০ দশক থেকে ২০০০-এর বলিউড কন্ট্রোভার্সি

First Published 3, Jul 2020, 12:47 PM

বলিউডে একের পর এক গসিপ থেকে কন্ট্রোভার্সি সৃষ্টি হয় প্রতিটা মুহূর্তে যা দশকের পর দশক খবরের শিরোনামে থেকে যায়। নব্বই দশক থেকে শুরু করে ২০০০ সাল জুড়ে থাকা এমনই কিছু বিতর্ক ফিরে দেখা, যা ছাপিয়ে গিয়েছিল সব বিতর্ককে। 

<p>রবিনা-অনীল-নতাশাঃ অনীল ও নতাশার প্রেমকাহিনির মধ্যে থাকা গসিপ আজও ঝড় তোলে বলিউডে। সেটা বিতর্কের মধ্যে অন্যতম কাহিনি- অনীল-রবিনার পার্টি কন্ট্রোভার্সি। এক পার্টিতে অনীলের আগের পক্ষের স্ত্রী অনীলের খুব কাছে কাছেই ছিলেন। রবিনা তাঁকে বলেছিলেন দূরে থাকতে। কিন্তু তিনি তা না শোনায় রবিনা গায়ে ফলের রস ফেলে দিয়েছিলেন। </p>

রবিনা-অনীল-নতাশাঃ অনীল ও নতাশার প্রেমকাহিনির মধ্যে থাকা গসিপ আজও ঝড় তোলে বলিউডে। সেটা বিতর্কের মধ্যে অন্যতম কাহিনি- অনীল-রবিনার পার্টি কন্ট্রোভার্সি। এক পার্টিতে অনীলের আগের পক্ষের স্ত্রী অনীলের খুব কাছে কাছেই ছিলেন। রবিনা তাঁকে বলেছিলেন দূরে থাকতে। কিন্তু তিনি তা না শোনায় রবিনা গায়ে ফলের রস ফেলে দিয়েছিলেন। 

<p>শাহিদ-করিনাঃ সইফের সঙ্গে বিয়ের আগে করিনা ও শাহিদের প্রেমকাহিনিতেই মজে ছিলেন সকলে। তাঁদের বিচ্ছেদ হয় ২০০৭ সালে। সেই বছরই ছড়িয়ে পড়ে অন্তরঙ্গ মুহূর্তের এক ভিডিও। যা শাহিদ করিনায় এড়িয়ে গেলেও, আজও হেডলাইন তৈরি করে। </p>

শাহিদ-করিনাঃ সইফের সঙ্গে বিয়ের আগে করিনা ও শাহিদের প্রেমকাহিনিতেই মজে ছিলেন সকলে। তাঁদের বিচ্ছেদ হয় ২০০৭ সালে। সেই বছরই ছড়িয়ে পড়ে অন্তরঙ্গ মুহূর্তের এক ভিডিও। যা শাহিদ করিনায় এড়িয়ে গেলেও, আজও হেডলাইন তৈরি করে। 

<p>ঐশ্বর্য-অভিষেক-জাহ্নবীঃ ২০০৭ সালে যখন ঐশ্বর্য ও অভিষেক বিয়ের সিদ্ধান্ত নিয়েছিলেন তখন ২৬ বছরের অভিনেত্রী জাহ্নবী বচ্চন ভিলার সামনে এসে নিজের প্রাণ দেওয়ার চেষ্টা করেন। দশ ছবির সেটে তাঁদের দেখা হয়েছিল। </p>

ঐশ্বর্য-অভিষেক-জাহ্নবীঃ ২০০৭ সালে যখন ঐশ্বর্য ও অভিষেক বিয়ের সিদ্ধান্ত নিয়েছিলেন তখন ২৬ বছরের অভিনেত্রী জাহ্নবী বচ্চন ভিলার সামনে এসে নিজের প্রাণ দেওয়ার চেষ্টা করেন। দশ ছবির সেটে তাঁদের দেখা হয়েছিল। 

<p>সইনি আহুজাঃ শ্লীলতা হানীর কেসে নাম জড়িয়েছিল গ্যাংস্টার তারকা। তাঁর নামে অভিযোগ ওঠে তিনি বাড়ির পরিচারিকাকে ধর্ষণ করেছেন। প্রথমটাতে কেউই অভিনেতার পাশে ছিলেন না। ফলে সেই খবর মুহূর্তে ছড়িয়ে পড়ে নেট দুনিয়ায়। </p>

সইনি আহুজাঃ শ্লীলতা হানীর কেসে নাম জড়িয়েছিল গ্যাংস্টার তারকা। তাঁর নামে অভিযোগ ওঠে তিনি বাড়ির পরিচারিকাকে ধর্ষণ করেছেন। প্রথমটাতে কেউই অভিনেতার পাশে ছিলেন না। ফলে সেই খবর মুহূর্তে ছড়িয়ে পড়ে নেট দুনিয়ায়। 

<p>রাখি-মিকাঃ ২০০৬ সালে বিতর্কের ঝড় তুলেছিলেন রাখি সাওয়ান্ত ও মিকার কাণ্ড। রাখির জন্মদিনে মিকা তাঁকে বলপূর্বক চুমু খাওয়ার চেষ্টা করেন। রাখি মুহূর্তে তাঁর গালে বসিয়েছিলেন চড়। এরপর কেসও ফাইল হয় মিকার নামে। </p>

রাখি-মিকাঃ ২০০৬ সালে বিতর্কের ঝড় তুলেছিলেন রাখি সাওয়ান্ত ও মিকার কাণ্ড। রাখির জন্মদিনে মিকা তাঁকে বলপূর্বক চুমু খাওয়ার চেষ্টা করেন। রাখি মুহূর্তে তাঁর গালে বসিয়েছিলেন চড়। এরপর কেসও ফাইল হয় মিকার নামে। 

<p>মধুর-প্রীতিঃ সবে মাত্র বলিউডে নিজের জায়গা করার চেষ্টা করছিলেন প্রীতি জৈন। এমনই সময় উঠে আসে তাঁক ধর্ষণের চেষ্টা করেছেন পরিচালক মধুর ভান্ডরকর। প্রীতির মতে ১৬ বার তাঁকে ধর্ষণ করা হয়েছিল। পরবর্তীতে প্রীতি এক কন্ট্রাক কিলারকে টাকা দেন মধুরকে মারার জন্য, তখনই গ্রেফতার করা হয় প্রীতিকে। </p>

মধুর-প্রীতিঃ সবে মাত্র বলিউডে নিজের জায়গা করার চেষ্টা করছিলেন প্রীতি জৈন। এমনই সময় উঠে আসে তাঁক ধর্ষণের চেষ্টা করেছেন পরিচালক মধুর ভান্ডরকর। প্রীতির মতে ১৬ বার তাঁকে ধর্ষণ করা হয়েছিল। পরবর্তীতে প্রীতি এক কন্ট্রাক কিলারকে টাকা দেন মধুরকে মারার জন্য, তখনই গ্রেফতার করা হয় প্রীতিকে। 

<p>অমন বর্মাঃ টেলিদুনিয়ার এই জনপ্রিয় তারকা একবার এক রিপোর্টারকে প্রস্তাব দিয়েছিলেন অভিনয় জগতে আনার। কিন্তু তাঁর বদলে দাবী করেছিলেন শারীরিক সম্পর্ক। পরবর্তীতে সেই টেপ ফাঁস করে দেন রিপোর্টার।</p>

অমন বর্মাঃ টেলিদুনিয়ার এই জনপ্রিয় তারকা একবার এক রিপোর্টারকে প্রস্তাব দিয়েছিলেন অভিনয় জগতে আনার। কিন্তু তাঁর বদলে দাবী করেছিলেন শারীরিক সম্পর্ক। পরবর্তীতে সেই টেপ ফাঁস করে দেন রিপোর্টার।

<p>ঐশ্বর্য সলমনঃ ঐশ্বর্যের সঙ্গে সলমন খানের সম্পর্ক নিয়ে ঝড় উঠেছিল বলিউডে। তাঁদের সম্পর্কে থাকার খবরের থেকেও বেশি শিরোনাম তৈরি করেছিল তাঁদের বিচ্ছেদের খবর। একবার রাত তিনটে পর্যন্ত সলমন খান ঐশ্বর্যের বাড়ির সামনে দাঁড়িয়ে ছিলেন। অবশেষে ঐশ্বর্য তাঁকে বাড়িতে ঢুকতে দিলেও বিয়ের প্রস্তাব ফিরিয়েছিলেন। </p>

ঐশ্বর্য সলমনঃ ঐশ্বর্যের সঙ্গে সলমন খানের সম্পর্ক নিয়ে ঝড় উঠেছিল বলিউডে। তাঁদের সম্পর্কে থাকার খবরের থেকেও বেশি শিরোনাম তৈরি করেছিল তাঁদের বিচ্ছেদের খবর। একবার রাত তিনটে পর্যন্ত সলমন খান ঐশ্বর্যের বাড়ির সামনে দাঁড়িয়ে ছিলেন। অবশেষে ঐশ্বর্য তাঁকে বাড়িতে ঢুকতে দিলেও বিয়ের প্রস্তাব ফিরিয়েছিলেন। 

<p>আদিত্য পাঞ্চলিঃ পূজা বেদীর বাড়ির নাবালিকা পরিচারিকাকে ধর্ষণ করার অভিষোগ ওঠে আদিত্য পাঞ্চলির বিরুদ্ধে। এই খবর পাওয়া মাত্রই আদিত্যের সঙ্গে সম্পর্ক ভেঙে ফেলেন পূজা বেদী।</p>

আদিত্য পাঞ্চলিঃ পূজা বেদীর বাড়ির নাবালিকা পরিচারিকাকে ধর্ষণ করার অভিষোগ ওঠে আদিত্য পাঞ্চলির বিরুদ্ধে। এই খবর পাওয়া মাত্রই আদিত্যের সঙ্গে সম্পর্ক ভেঙে ফেলেন পূজা বেদী।

loader