হিন্দি ছবিতে দীর্ঘ চুম্বণ করিশ্মা-আমিরের, দেখা মাত্রই কী বলেছিলেন প্রবীণ অভিনেতা দিলীপ কুমার

First Published Dec 11, 2020, 9:42 AM IST

১৯৯৬ সালে এক সাহসী পদক্ষেপ রাজা হিন্দুস্তানী ছবির চুম্বণের দৃশ্য। মুহূর্তে ছড়িয়ে পড়েছিল সেই দৃশ্য দর্শকমহলে। কিন্তু সেই দৃশ্য নিয়ে তেমন কোনও সমালোচনাই হয়নি। উল্টে পেয়েছে বহু প্রশংসা, মুখ খুললেন ছবির পরিচালক। 

<p style="text-align: justify;">রাজা হিন্দুস্তানী ছবির ঐতিহাসিক দৃশ্য করিশ্মা কাপুর ও আমির খানের চুম্বণের দৃশ্য। এক কথায় বলতে গেলে বলিউডের এক মাইলস্টোন।&nbsp;</p>

রাজা হিন্দুস্তানী ছবির ঐতিহাসিক দৃশ্য করিশ্মা কাপুর ও আমির খানের চুম্বণের দৃশ্য। এক কথায় বলতে গেলে বলিউডের এক মাইলস্টোন। 

<p style="text-align: justify;">একটা সময়ের পর তা ছবি &nbsp;ইউএসপি হয়ে দাঁড়িয়েছিল এই দৃশ্য। কিন্তু সেই দৃশ্য নিয়ে কোনও খারাপ কথা শুনতে হয়নি পরিচালক ধর্মেশ দর্শণকে।&nbsp;</p>

একটা সময়ের পর তা ছবি  ইউএসপি হয়ে দাঁড়িয়েছিল এই দৃশ্য। কিন্তু সেই দৃশ্য নিয়ে কোনও খারাপ কথা শুনতে হয়নি পরিচালক ধর্মেশ দর্শণকে। 

<p style="text-align: justify;">তিনি জানিয়েছিলেন, উল্টে তা প্রশংসা কুড়িয়েছে বহু। খোদ দিলীপ কুমার জানিয়েছিলেন তাঁর এই দৃশ্য মুঘল-ই-আজমের কথা মনে করিয়ে দিয়েছিল।&nbsp;</p>

তিনি জানিয়েছিলেন, উল্টে তা প্রশংসা কুড়িয়েছে বহু। খোদ দিলীপ কুমার জানিয়েছিলেন তাঁর এই দৃশ্য মুঘল-ই-আজমের কথা মনে করিয়ে দিয়েছিল। 

<p style="text-align: justify;">যেখানে তিনি মধুবালার মুখে পালক ছুঁইয়ে ছিলেন। সেই দৃশ্য যেমন সারা জাগিয়েছিল, ঠিক একইভাবে ঝড় তুলেছিল এই চুম্বণের ভাষা।&nbsp;</p>

যেখানে তিনি মধুবালার মুখে পালক ছুঁইয়ে ছিলেন। সেই দৃশ্য যেমন সারা জাগিয়েছিল, ঠিক একইভাবে ঝড় তুলেছিল এই চুম্বণের ভাষা। 

<p style="text-align: justify;">পরিচালকের কথায়, এটা হিন্দি ছবির অন্যতম দীর্ঘ চুম্বণের দৃশ্য। এর দৈর্ঘ্য ছিল বেশ বড়। কিন্তু তিনি তা কেটে দেন। যদিও তা সেন্সরের জন্য নয়।&nbsp;</p>

পরিচালকের কথায়, এটা হিন্দি ছবির অন্যতম দীর্ঘ চুম্বণের দৃশ্য। এর দৈর্ঘ্য ছিল বেশ বড়। কিন্তু তিনি তা কেটে দেন। যদিও তা সেন্সরের জন্য নয়। 

<p style="text-align: justify;">প্রেক্ষাগৃহে যখন এই ছবি মুক্তি পেয়েছিল, তখন তিনি লক্ষ্য করেছিলেন, এই সময় সকলে চুপ। উপভোগ করলেন, কোনও অশ্লীল ভাষা নয়।&nbsp;</p>

প্রেক্ষাগৃহে যখন এই ছবি মুক্তি পেয়েছিল, তখন তিনি লক্ষ্য করেছিলেন, এই সময় সকলে চুপ। উপভোগ করলেন, কোনও অশ্লীল ভাষা নয়। 

<p style="text-align: justify;">এই দৃশ্য মন ছুঁয়েছিল দিলীপ কুমারের। তিনি নিজেই পরিচালককে জানিয়েছিলেন এক ভিন্ন স্বাদের সম্পর্ক গড়ার আমেজ রয়েছে এই চুম্বণে।&nbsp;</p>

এই দৃশ্য মন ছুঁয়েছিল দিলীপ কুমারের। তিনি নিজেই পরিচালককে জানিয়েছিলেন এক ভিন্ন স্বাদের সম্পর্ক গড়ার আমেজ রয়েছে এই চুম্বণে। 

<p style="text-align: justify;">যা আজও বহু চর্চিত চুম্বণ হয়েই রয়ে গিয়েছে। এটি শ্যুট করতে সময় লেগেছিল মোট ৪ ঘণ্টা।&nbsp;</p>

যা আজও বহু চর্চিত চুম্বণ হয়েই রয়ে গিয়েছে। এটি শ্যুট করতে সময় লেগেছিল মোট ৪ ঘণ্টা। 

Today's Poll

একসঙ্গে কতজন প্লেয়ারের সঙ্গে খেলতে পছন্দ করেন