'আত্মহত্যা করলে দেহ এমন হয় না', বিস্ফোরক সুশান্তের মরদেহ বাহক অ্যাম্বুলেন্স চালক

First Published 10, Aug 2020, 7:31 PM

ভয়াবহ তথ্য এবার সামনে আনলেন সুশান্ত সিং রাজপুতের অ্যাম্বুলেন্স চালক। যিনি অ্যাম্বুলেন্স করে সুশান্তের মরদেহ নিয়ে গিয়েছিলেন, তিনিই এবার জল্পনা উষ্কে সামনে আনলেন নয়া তথ্য। সুশান্তের মরদেহ দেখে তাঁর মনে হয়নি এটি একটি আত্মহত্যার দেহ। ঠিক কী কী কারণে তাঁর মনে হয়নি খোলসা করলেন তিনি। 

<p>সুশান্ত সিং রাজপুতের মৃত্যদেহ বহনকারী অ্যাম্বুলেন্সের চালক এবার মুখ খুললেন এক সংবাদ মাধ্যমেক কাছে। সেখানেই তিনি সাফ জানালেন সুশান্তের দেহ দেখে তাঁর সন্দেহ হয়।&nbsp;</p>

সুশান্ত সিং রাজপুতের মৃত্যদেহ বহনকারী অ্যাম্বুলেন্সের চালক এবার মুখ খুললেন এক সংবাদ মাধ্যমেক কাছে। সেখানেই তিনি সাফ জানালেন সুশান্তের দেহ দেখে তাঁর সন্দেহ হয়। 

<p>সাক্ষাৎকারে চালককে বলতে শোনা যায়, কখনই একটা আত্মহত্যার দেহ সম্পূর্ণ হলুদ হয়ে যায় না। কিন্তু সুশান্তের দেহ ছিল হলুন।&nbsp;</p>

সাক্ষাৎকারে চালককে বলতে শোনা যায়, কখনই একটা আত্মহত্যার দেহ সম্পূর্ণ হলুদ হয়ে যায় না। কিন্তু সুশান্তের দেহ ছিল হলুন। 

<p>তাঁর কথায় সুশান্তের দেহে একাধিক ক্ষত ছিল। কিন্তু আত্মহত্যা করলে কেন এই ক্ষত থাকবে! তাতে কো তাঁর আঘাত লাগার কথা নয়।&nbsp;</p>

তাঁর কথায় সুশান্তের দেহে একাধিক ক্ষত ছিল। কিন্তু আত্মহত্যা করলে কেন এই ক্ষত থাকবে! তাতে কো তাঁর আঘাত লাগার কথা নয়। 

<p>গলায় থাকা সুশান্তের দড়ির দাগ নিয়েও প্রশ্ন তুলেছেন সুশান্তের অ্যাম্বুলেন্স চালক। তাঁর কথায় এই দাগ পুরো গলা জুরে ছিল। কিন্তু তা থাকার কথা নয়।&nbsp;</p>

গলায় থাকা সুশান্তের দড়ির দাগ নিয়েও প্রশ্ন তুলেছেন সুশান্তের অ্যাম্বুলেন্স চালক। তাঁর কথায় এই দাগ পুরো গলা জুরে ছিল। কিন্তু তা থাকার কথা নয়। 

<p>তিনি জানান অনেক আত্মহত্যার দেহ তিনি বহন করেছেন, দেখেছেন, ফলে এই দেহ দেখা নতুন কিছু নয়। কিন্তু কোনও দিক থেকেই অন্যান্য আত্মহত্যার সঙ্গে এই দেহের মিল ছিল না।&nbsp;</p>

তিনি জানান অনেক আত্মহত্যার দেহ তিনি বহন করেছেন, দেখেছেন, ফলে এই দেহ দেখা নতুন কিছু নয়। কিন্তু কোনও দিক থেকেই অন্যান্য আত্মহত্যার সঙ্গে এই দেহের মিল ছিল না। 

<p>সুশান্তের পা জড়ানো ছিল। কিন্তু চালকের মতে যখন কেউ আত্মহত্যা করেন, তখন তিনি একটা সময়ের পর পা ছুঁড়বে, ফলে তা কখনই জড়ানো থাকবে না।&nbsp;</p>

সুশান্তের পা জড়ানো ছিল। কিন্তু চালকের মতে যখন কেউ আত্মহত্যা করেন, তখন তিনি একটা সময়ের পর পা ছুঁড়বে, ফলে তা কখনই জড়ানো থাকবে না। 

<p>এখানেই শেষ নয়, তিনি এই জিনিস দুলো লক্ষ্য করে ছিলেন বলেই তাঁর ধারনা বেশ কয়েকদিন ধরেই তাঁর কাছে ফোন আসছে।&nbsp;</p>

এখানেই শেষ নয়, তিনি এই জিনিস দুলো লক্ষ্য করে ছিলেন বলেই তাঁর ধারনা বেশ কয়েকদিন ধরেই তাঁর কাছে ফোন আসছে। 

<p>হুমকি দেওয়া হচ্ছে বিদেশি কোনও নম্বর থেকে। যা নিয়ে বেজায় চিন্তিত রয়েছেন তিনি। ১৪ তারিখ তাঁর কাছে ফোন আসে মরদেহ নিয়ে যাওয়ার জন্য, তিনি ফোন পেয়েই উপস্থিত হয়েছিলেন।&nbsp;</p>

হুমকি দেওয়া হচ্ছে বিদেশি কোনও নম্বর থেকে। যা নিয়ে বেজায় চিন্তিত রয়েছেন তিনি। ১৪ তারিখ তাঁর কাছে ফোন আসে মরদেহ নিয়ে যাওয়ার জন্য, তিনি ফোন পেয়েই উপস্থিত হয়েছিলেন। 

loader