বিশ্বনাথ দাস, হাওড়া-করোনা ভাইরাস সংক্রান্ত সরকারের সচেতনতার বার্তাকেও অগ্রাহ্য। প্রতিবেশীর কাছে হেনস্থার শিকার হলেন এক বিমান সেবিকা। তাঁর থেকে এলাকা করোনা সংক্রমণের আশঙ্কা রয়েছে বলে দাবি তুলে প্রতিবেশী তাঁকে হেনস্থা করে বলে অভিযোগ। শুধু তাই নয়, তাঁকে এলাকা থেকে তাড়িয়ে দেওয়ারও হুমকি দেয়। ঘটনাটি ঘটেছে হাওড়ার শিবপুরে।

জানাগেছে, হাওড়ার শিবপুরের বাসিন্দা সুদীপা অধিকারী বিমান সংস্থায় কর্মরত। তিনি বিমান সেবিকা হিসেবে কাজ করায় তাঁর থেকে করোনা সংক্রমণের আশঙ্কা রয়েছে বলে দাবি করেন প্রতিবেশীরা। এই অবস্থায় তাঁর রামরতন মুখার্জি লেনের বাড়ি থেকে চলে যাওয়ার হুমকি দেয়। প্রতিবেশীদের কথা না মানায় প্রায়ই তাঁকে অশ্রাব্য ভাষায় গালিগালাজ করা হত বলে অভিযোগ। শুধু তাই নয়, ওই বিমান সেবিকার চরিত্র নিয়েও নানান কথা প্রতিবেশীরা বলত বলে অভিযোগ। এমনকি, সে বিমান সেবিকার কাজে বেরোলেও তাঁর পোশাক নিয়েও এলাকাবাসী কটূক্তি করল বলে অভিযোগ। 

আরও অভিযোগ, বেশ কিছুদিন ধরেই তাঁকে এভাবেই হেনস্থা করছে প্রতিবেশীরা। কয়েকদিন আগে এলাকার কুকুরদের খাওয়ানোর সময়ও এলাকার লোকজন তাঁকে ধাক্কা দেয়। এমনকি তাঁকে মারধর করা হয় বলেও দাবি ওই বিমান সেবিকার। প্রতিবেশীরা তাঁদের এলাকা ছাড়া করতে ফ্ল্য়াটে ঢুকেও শাসানি দেয় বলে অভিযোগ। 

এই অবস্থায় প্রতিবেশীদের থেকে বাঁচতে শিবপুর থানায় অভিযোগ দায়ের করেন ওই বিমান সেবিকা। কিন্তু পুলিশের তরফে তাঁদের কোনও সাহায্য করা হয়নি বলে অভিযোগ। প্রতিবেশীরা শাসানি দেয়, পুলিশ তাঁরা ভয় পায় না। এই অবস্থায় উদ্বেগ আর উৎকণ্ঠায় দিন কাটছে পরিবারের।