এদেশে করোনা সংক্রমণ বেড়ে যাওয়া নিয়ে তাবলিগ জামাতকে দায়ি করছেন অনেকেই। এবার এই জামাতে যোগ দেওয়া বিদেশি নাগরিকদের বিরুদ্ধে বড় ধরণের পদক্ষেপ করে বসল বিহারের মুখ্যমন্ত্রী  নীতিশ কুমারের পুলিশবাহিনী। ভিসা বিধি লঙ্ঘনের অভিযোগে বিহারের বিভিন্ন জেলায় লুকিয়ে থাকা তাবলিগ জামাতের সঙ্গে যুক্ত ৫৭ জন বিদেশি নাগরিককে গ্রেফতার করেছে বিহার পুলিশ। আটক করা হয়েছে তাঁদের পাসপোর্টও। 

৫৭ জন বিদেশি নাগরিকের মধ্যে পাটনা থেকে গ্রেফতার করা হয়েছে ১৭ জনকে। কিসানগঞ্জ থেকে ১১ জনকে, আরারিয়া থেকে ১৮ জনকে এবং বাক্সার থেকে ১১ জন বিদেশি নাগরিককে গ্রেফতার করে শ্রীঘরে পাঠান হয়েছে। পাটনার সিনিয়র পুলিশ সুপার  উপেন্দ্র শর্মা জানিয়েছেন, কিরঘিজস্তানের ১৭ জন নাগরিক পর্যটন ভিসায় এদেশে এসে ভিসা নিয়ম লঙ্ঘন করে ধর্মপ্রচার চালাচ্ছিলেন। এই ব্যক্তিদের বিরুদ্ধে ফরেনার্স অ্যাক্টের অধীনে ইতিমধ্যে এফআইআর দায়ের হয়েছে। ধৃতদের জেলেও পাঠান হয়েছে।  

পাটনার মত একই ঘটনার সাক্ষি থেকেছে কিসানগঞ্জও। এখানকার পুলিশ সুপার কুমার আশীষ জানান, পর্যটন ভিসায় এখানে এসেছিলেন ১০ জন ইন্দোনেশিয়ান এবং ১ জন মালয়েশিয়ান নাগরিক। এরাও ভিসার নিয়ম লঙ্ঘন করেছেন এবং কিসানগঞ্জ আসার বিষয়ে স্থানীয় পুলিশকে কিছুই জানাননি। 


এক মাসের মধ্যে প্রাণ গেল ১০ হাজারের, গোড়ায় ঢিলেমির মাসুল গুনছে অহঙ্কারী নিউ ইয়র্ক
আরও এক মাসের জন্য লকডাউন বাড়ল ফ্রান্সে, সমাধান অধরা, অসহায় স্বীকারোক্তি ম্যাক্রঁর
নিজের রাজ্যেই মুখ থুবড়ে পড়ল ভিলওয়ারা মডেল, সংক্রমণ আটকানোর নতুন পথ খুঁজছে গোলাপি শহর

আরারিয়াতেও হয়েছে একই ঘটনার পুনরাবৃত্তি। পুলিশ সুপার ধুরত সাইয়ালি জানান, ধৃত বিদেশিদের মধ্যে ৯ জন মালয়েশিয়ার এবং বাকি ৯ জন বাংলাদেশের নাগরিক।  এর মধ্যে মালয়েশিয়ার ৯  নাগরিকের বিরুদ্ধে আরারিয়া নগর থানায় ৯টি  এবং বাংলাদেশি নাগরিকের বিরুদ্ধে নরপতগঞ্জ থানায় একটি এফআইআর দায়ের করা হয়েছে । বক্সারের পুলিশ সুপার উপেন্দ্র নাথ ভার্মা জানান, মেডিকেল পরীক্ষা করানোর পরে সমস্ত বিদেশীকে স্থানীয় একটি হোটেলে আলাদা করে কোয়ারেন্টাইনে রাখা হয়েছে। বাক্সার ১১ বিদেশী নাগরিকের মধ্যে সাত জন ইন্দোনেশিয়ার বাসিন্দা এবং চারজন মালয়েশিয়ার বাসিন্দা।

দেশের অন্যান্য ভাগের মত বিহারেও ক্রমেই বাড়ছে করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত রোগীর সংখ্যা। গত ২৪ ঘণ্টায় নতুন করে ২ জনের শরীরে সংক্রমণের সন্ধান পাওয়া গিয়েছে। ফলে রাজ্যটিতে আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৬৬। বিহারে করোনা সংক্রমণে এখনও পর্যন্ত ১ জনের মৃত্যুর খবর পাওয়া গিয়েছে। এই রাজ্যে করোনা সংক্রমণের সবচেয়ে বেশই ঘটনা ঘটেছে বেগুসরাইতে। বিহারে এখনও পর্যন্ত ৭৭৬৩ জনের করোনা পরীক্ষা হয়েছে। কোভিড ১৯ রোগকে জিতে সুস্থ জীবনে ফিরেয়েছন ২৬ জন।