দুই স্ত্রীর সঙ্গে সঙ্গম চলাকালীন লাইভ স্ট্রীমিং। আর এহেন যৌন দৃশ্য লাইভ দেখিয়ে আসত লক্ষ লক্ষ টাকা। অবশেষে পুলিশের জালে গুণধর যুবক। মধ্যপ্রদেশের বিদিশা থেকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। 

ডেটিং অ্যাপের মাধ্যমে দ্বিতীয় স্ত্রীর সঙ্গে আলাপ

জানা গিয়েছে, ওই ব্যক্তির প্রথম স্ত্রীর লাইভ স্ট্রীমিং চলাকালীন এই যৌন মিলনে কোনও অসুবিধা নেই। তবে বাধ সাধে দ্বিতীয় স্ত্রী। তিনিই থানায় গিয়ে অভিযোগ দায়ের করেন। তাঁর অভিযোগের ভিত্তিতেই গ্রেফতার করা হয় তাঁর স্বামীকে। এখানেই শেষ নয়, আরও জানা গিয়েছে, ওই দুই স্ত্রীকে টাকার লোভ দেখিয়েছিল ওই যুবক। ডেটিং অ্যাপের মাধ্যমে দ্বিতীয় স্ত্রীর সঙ্গে আলাপ হয়েছিল। 

এই লীলা মেনে নিতে পারেননি দ্বিতীয় স্ত্রী 

তবে দ্বিতীয় স্ত্রী ধার্মিক প্রকৃতির। তার উপর সাত মাসের অন্তঃসত্ত্বা। তাই এই লীলা মেনে নিতে পারেননি তিনি। সোজা গিয়ে পুলিশের কাছে সব কিছু জানিয়েছেন। তবে এই ঘটনার পর মধ্যপ্রদেশের পুলিশ প্রশাসনও নড়েচড়ে বসেছে।