বিশ্বের মাত্র ৮টি দেশ আছে, যাদের জনসংখ্যা এখন বিজেপির মোট সদস্য সংখ্যার থেকে বেশি। এমনই বিপুল সাড়া মিলেছে তাদের সদস্য সংগ্রহের অভিযানে। বৃহস্পতিবার নয়াদিল্লিতে বিজেপির সদর দফতরে এক সাংবাদিক সম্মেলনে বিজেপির সর্বভারতীয় কার্যকরী সভাপতি জেপি নাড্ডা এমন তথ্যই জানিয়েছেন।

তিনি জানান, তাঁদের লক্ষ্য ছিল বর্তমান সদস্য সংখ্যার থেকে অন্তত ২০ শতাংশ সদস্য বৃদ্ধি করা। তার জায়গায় গত ৬ জুলাই শ্যামাপ্রসাদ মুখোপাধ্যায়ের জন্মদিন থেকে অগাস্টের শেষ পর্যন্ত বিজেপিতে নতুন সদস্য যোগ দিয়েছেন ৭ কোটি। অর্থাৎ বিজেপির সদস্য সংখ্যা প্রায় ৫০ শতাংশ বেড়েছে। আর এই নতুন ৭ কোটি মানুষের যোগদানে বিজেপির মোট সদস্যের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ১৮ কোটিতে।

সবচেয়ে বেশি সাড়া মিলেছে তৃণমূল শাসিত পশ্চিমবঙ্গ ও সদ্য বিশেষ মর্যাদা বাতিল হওয়া জম্মু ও কাশ্মীরে। নাড্ডা জানিয়েছেন, বঙ্গ বিজেপিকে ১০ লক্ষ নতুন সদস্য সংগ্রহের লক্ষ্য দেওয়া হয়েছিল। সেখানে এই রাজ্যে নতুন বিজেপি সদস্য হয়েছেন ৩০ লক্ষ। সব মিলিয়ে বাংলায় বিজেপি সদস্যের সংখ্যা ১ কোটি ছাড়িয়ে গিয়েছে। বিদজেপিকে নিয়ে একই রকম আগ্রহ দেখা গিয়েছে উপত্যকাতেও বলে দাবি করেছেন বিজেপির কার্যকরী সভাপতি।

এই নিয়ে দ্বিতীয়বার এই সদস্য সংগ্রহ অভিযান করল বিজেপি। এর আগে ২০১৫ সালে প্রথমবারের অভিযানে বিজেপির সদস্য হয়েছিলেন ১১ কোটি মানুষ। যার ফলে সেই সময় থেকেই বিশ্বের সবচেয়ে বড় রাজনৈতিক দল হয়েছিল বিজেপি। এইবার সেই তকমাটা আরো পাকা হল।