রাজনৈতিক মহলে নক্ষত্রপতন। আচমকাই সুষমা স্বরাজের প্রয়াণে শোকের ছায়া নেমে এসেছে দেশের রাজনৈতিক মহলে। মঙ্গলবার হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে এইমস-এ ভর্তি হলে, চিকিৎসকরা মৃত বলে ঘোষণা করেন। তাঁর প্রয়াণে বিভিন্ন রাজনৈতিক ব্যক্তিত্ব শোকপ্রকাশ করেছেন। প্রাক্তণ বিদেশ মন্ত্রীর প্রয়াণে গভীর শোক প্রকাশ করেছেন সিনিয়র বিজেপি নেতা লালকৃষ্ণ আডবাণীও। শোক প্রকাশ করে তিনি জানিয়েছেন, খুব কাছের সহকর্মী ছিলেন সুষমা জি। ভারতীয় জনতা পার্টির প্রায় শুরুর সময় থেকেই একসঙ্গে কাজ করেছি আমরা। আশির দশকে আমি যখন দলের প্রেসিডেন্ট ছিলাম তখন দলের একনিষ্ঠ সদস্যা ছিলেন তিনি। কয়েক বছরের মধ্যেই নিজের কর্মদক্ষতায় তিনি আমাদের দলের একজন জনপ্রিয় নেত্রী হয়ে ওঠেন। তাঁর কর্মক্ষমতা, বুদ্ধিদীপ্ত উপস্থিতির সেই দিনগুলি আজ আমার বারবার মনে পড়ছে।
সুন্দর কথার মাধ্যমে জিতেছিলেন বহু মানুষের মন৷ সেই গুণেই তিনি অন্যান্য রাজনীতিকদের থেকে আলাদা ও জনপ্রিয় হয়ে রইলেন৷ দেশের অন্যতম জনপ্রিয় রাজনৈতিক ব্যক্তিত্ব সুষমা জি। তাঁর সঙ্গে পরিচয় হওয়ার পর আমার এমন কোনও জন্মদিন বাদ যায় নি যে তিনি আমার প্রিয় চকোলেট কেক আনেন নি। আমাদের দেশ আজ একজন মহান নেতৃকে হারাল। ওঁর পরিবারের প্রতি আমার সমবেদনা রইল। ওঁনার আত্মার শান্তি কামনা করি।

হাসপাতাল থেকে গতকাল রাতেই বাড়িতে নিয়ে যাওয়া হয় প্রাক্তণ বিদেশ মন্ত্রীর দেহ৷ তাঁর বাসভবনে উপস্থিত হয়েছিলেন রাজৈনতিক মহলের বিশিষ্ট ব্যক্তিত্বরা। সেখানে মেয়ে প্রতিভা আডবাণীর সঙ্গে পৌঁছে গিয়েছিলেন সিনিয়র বিজেপি নেতা লালকৃষ্ণ আডবাণীও। এদিন দুপুর ১২টা থেকে ৩টে অবধি প্রয়াত প্রাক্তন বিদেশমন্ত্রী সুষমা স্বরাজের দেহ শায়িত থাকবে বিজেপি-র সদর দপ্তরে, জানিয়েছেন বিজেপি সভাপতি জে পি নাড্ডা। এদিন বেলা ৩ টের পর পূর্ণ রাষ্ট্রিয় মর্যাদায় শেষকৃত্য সম্পন্ন হবে তাঁর।