ধেয়ে আসছে ঘূর্ণিঝড় 'বায়ু'। বৃহস্পতিবার গুজরাট উপকূলে আছড়ে পড়তে পারে এই শক্তিশালী ঘূর্ণিঝড়। ইতমধ্যেই গুজরাট উপকূলবর্তী অঞ্চলে রেড অ্য়ালার্ট জারি হয়েছে। 

আবহাওয়া দফতর সূত্রে জানা গিয়েছে, বুধবারই এই ঘূর্ণিঝড় ভয়ঙ্কর ঘূর্ণিঝড়ে পরিণত হয়েছে। ১৪০ থেকে ১৬৫ কিলোমিটার বেগে এই ঝড় হতে পারে বলে জানা গিয়েছে। বৃহস্পতিবার সকালেই আছড়ে পড়ার সম্ভাবনা রয়েছে এই ঝড়ের। ঝড়ের সঙ্গে ভারী বৃষ্টিপাতের পূর্বাভাসও দিয়েছে আবহাওয়া দফতর। এই ভয়ঙ্কর ঝড়ে যাতে ক্ষতির পরিমাণকে নিয়ন্ত্রণে রাখা যায়, তার জন্য ব্য়বস্থা নিয়েছে প্রশাসন। 

দেখে নেওয়া যাক কী কী ভাবে মানুষকে সচেতন করা হচ্ছে-  

১) লাউড স্পিকার, হোয়াটসঅ্যাপ মেসেজ, বাল্ক মেসেজের মাধ্যমে ঝড়ের খবরাখবর দিয়ে মানুষকে সতর্ক করা হচ্ছে। 

২) মৎস্যজীবীদের ১৩ জুন সকাল থেকে ১৬ জুন পর্যন্ত সমুদ্রের আশপাশে যেতে না করা হয়েছে। 

৩) গুজরাটের মুখ্যমন্ত্রী বিজয় রুপানি পর্যটকদের উপকূলবর্তী এলাকা থেকে সরিয়ে নিরাপজ জায়গায়য় নিয়ে যাওয়ার নির্দেশ দিয়েছেন। 

৪) উপকূলবর্তী এসাকায় বসবাসকারী প্রায় ২.৯ লক্ষ মানুষকে সরিয়ে নিয়ে যাওয়া হচ্ছে। 

৫) সেনা, বিএসএফ, বায়ুসেনার জওয়ানদের এলাকায় মোতায়েন করা হচ্ছে। 

৬) নিরাপত্তার কথা মাথায় রেখে মানুষের জন্য ৬৭টি আশ্রয় শিবিরের ব্যবস্থা করা হয়েছে। ৫ লক্ষ খাবারের প্যাকেট ইতিমধ্যেই প্রস্তুত করে রাখা হয়েছে।